ADs by Techtunes tAds
ADs by Techtunes tAds

ব্র্যান্ডের মোবাইল নাকি সিম্ফনি, ওয়ালটন, মাইক্রোম্যাক্স ? ? ?

আসসালামু আলাইকুম ওয়া রমাতুল্লাহি ওয়া বারাকাতু

ADs by Techtunes tAds

সময় এখন অ্যান্ড্রয়েডের, আমরা সবাই এখন স্মার্ট, কারন আমাদের সাথে আছে স্মার্টফোন। স্মার্টফোনগুলো এখন আমাদের ক্রয়ক্ষমতার মধ্যে এসে গেছে, আমাদের মধ্যে এখানে অনেকে রয়েছে যারা স্যামসাং, সনি, এইচটিছি, এলজি, মটোরলা ব্যাবহার করছে, আবার অনেকে সিম্ফনি, ওয়ালটন, মাইক্রোম্যাক্স ব্যাবহার করছে। আবার অনেকে রয়েছে যারা এখনও কিনেনি বা কিনবে . . . . .

এবার আসি মূলকথায়।

বাজারে ব্র্যান্ডের মোবাইলের পাশাপাশি দেশি ব্র্যান্ডের (চাইনিজ রিব্র্যান্ড) অনেক মোবাইল রয়েছে, ব্র্যান্ডের পাশাপাশি দেশি ব্র্যান্ডগুলো ভালই চলছে, এবং অনেক চাহিদা রয়েছে। আমার মতে অ্যান্ড্রয়েড আসল মজা পেতে হলে আপনাকে অবশ্যই ব্র্যান্ডের (দাম একটু বেশি) ব্যাবহার করতে হবে। তবে অনেকের বাজেটের মধ্যে থাকেনা যার কারনে দেশি ব্র্যান্ডের মোবাইল ব্যাবহার করতে হয়, (দুধের সাধ ঘোলে মেটানো)।

দেশি ব্র্যান্ডের সুবিধা

# দাম কম, নাগালের মধ্যে, মাত্র ৪.৮হাজার থেকে শুরু।

# অ্যান্ড্রয়েডের সীমিত মজা।

আমি আর কোন সুবিধা দেখি না।

অসুবিধা

# অপেরেটিং সিস্টেম আপডেট, আপনার মোবাইলে যা দেওয়া থাকবে তাই, সবার আপডেট করা যদি হয়ে যায় তারপর আপনার পালা, তাও আপনাকে খুজে বের করতে হবে, কয়েক মাস লাগতে পারে।

ADs by Techtunes tAds

# ড্রাইভার সমস্যা, ড্রাইভার আপনাকে খুজে বের করতে হবে, কয়েক মাস পর পেতে পারেন।

# ওয়েব সাপোর্ট, আপনি আপনার সমস্যার কথা বলবেন কিন্তু কোন উত্তর পাবেন না, আপনার প্রশ্ন, প্রশ্নই থেকে যাবে।

# ফোন রুট করা।

# ক্যামেরা, আপনি কখনও ক্যামেরায় সন্তুষ্ট হতে পারবেন না, কেন যারা ব্যাবহার করছে তারাই জানে।

অনেকে এই দেশি ব্র্যান্ডের মোবাইল ব্যাবহার করছে, কেউ সন্তুষ্ট আবার কেউ অসন্তুষ্ট, এখন আপনি পছন্দ করুন কোনটা কিনবেন।

আমি কিন্তু দেশী ব্র্যান্ডের বিরুদ্ধে বলছি না, কারন আমি মনে করি ১০-১২হাজারের বেশি দিয়ে দেশি ব্র্যান্ডের মোবাইল কেনা মানে বোকামি, কারণ এখন ১২হাজার থেকে ব্র্যান্ডের মোবাইলগুলো পাওয়া যায় (যদিও প্রসেসর, রেম, গ্রাফিক্স, ডিসপ্লে একটু কম তারপরও অনেক ভাল)। অনেকে আমার কাছে জানতে চেয়েছে যে ব্র্যান্ডের মোবাইল কিনবে নাকি দেশী ব্র্যান্ডের মোবাইল, আমি বলতে চাই আপনারা কিছু টাকা বেশী দিয়ে ব্র্যান্ডের মোবাইলগুলো কিনুন।

(বিদ্রঃ  জিনিস যেটা ভাল দাম তার একটু বেশী )

সিম্ফনি, ওয়ালটনের বেশ কিছু সমস্যা রয়েছে। আশা করছি আমাদের দেশি ব্র্যান্ডগুলো তাদের সমস্যাগুলো কাটিয়ে উঠতে পারবে, তারা রিব্র্যান্ড না করে নিজেদের ডিজাইনে তৈরি করবে, এবং ভাল মোবাইল আমাদের দিবে। আমাদের যেন নিরাশ না হতে হয়। এবং সবার আগে আমি থাকব।

https://www.facebook.com/easines (my profile)

https://www.facebook.com/onlytrue.es (like this page)

ADs by Techtunes tAds

https://www.facebook.com/groups/Unemployeds.shop (fun group)

ADs by Techtunes tAds
Level 0

আমি Muhammad Easin Islam। বিশ্বের সর্ববৃহৎ বিজ্ঞান ও প্রযুক্তির সৌশল নেটওয়ার্ক - টেকটিউনস এ আমি 6 বছর 6 মাস যাবৎ যুক্ত আছি। টেকটিউনস আমি এ পর্যন্ত 83 টি টিউন ও 113 টি টিউমেন্ট করেছি। টেকটিউনসে আমার 4 ফলোয়ার আছে এবং আমি টেকটিউনসে 0 টিউনারকে ফলো করি।


আরও টিউনস


টিউনারের আরও টিউনস


টিউমেন্টস

@মুহাম্মদ ইয়াসিন ইসলামঃ ভাই আমি symphony 25 ব্যবহার করি।প্রায় ৬ মাস হল।galaxy y এর থেকে মনে করি এটা অনেক ভাল।সামান্য কিছু অসুবিধা ছারা বড় কোন অসুবিধা এটায় নেই।camera ও galaxy থেকে ভাল।আমার মনে হয় Brand এর থেকেও China ভাল করছে।Android এ China/ brand এগুলা ধরা উচিত না।

আপনি বলেছেন “আমি কিন্তু দেশী ব্র্যান্ডের বিরুদ্ধে বলছি না”, কিন্তু আপনি পুরো টিউন জুড়েই দেখছি ইন্ডিরেক্টলি বিরুদ্ধেই কথা বলে গেছেন … !

কিছু কিছু হিসেবে আপনার কথা ঠিকও আবার বেঠিকও ! যেমন, আপনার অসুবিধার পয়েন্ট গুলোই যুক্তি দেই …

অসুবিধা দেখিয়েছেন,
# অপেরেটিং সিস্টেম আপডেট, আপনার মোবাইলে যা দেওয়া থাকবে তাই, সবার আপডেট করা যদি হয়ে যায় তারপর আপনার পালা, তাও আপনাকে খুজে বের করতে হবে, কয়েক মাস লাগতে পারে।
আমি বলব, শেষ পর্যন্ত কিন্তু বলেইছেন যে কয়েকমাস লাগতে পারে খুঁজে পেতে, পাওয়াতো যাবে ! আর, যারা এক্সট্রিম/ বুঝে শুনে ব্যাবহার করে থাকেন তারাই শুধু মাত্র আপডেট করার চিন্তা করবেন । আর যারা এক্সট্রিম অ্যান্ড্রয়েড ইউজার তাদের খুঁজে পেতে খুব বেশি কষ্টতো হবার কথা নয় । আর কম টাকার সেটগুলো যেমন Symphony W5, এখানে আপডেট সম্ভবত পাওয়া যাবেনা । আর এই ক্ষেত্রে আমি বলব আপনি নিশ্চয়ই 6990 টাকায় জেলীবিন ইউজ করতে চান না ? তাছাড়া ওয়ালটন এবং এরপরের হ্যান্ডসেটেতো আপডেট পাওয়া গেছে । কষ্ট করে খুজেই না হয় নিতে হয়েছে, পাওয়াতো গিয়েছে …!

# ড্রাইভার সমস্যা, ড্রাইভার আপনাকে খুজে বের করতে হবে, কয়েক মাস পর পেতে পারেন।
>> উপরের জবাবটিই কার্যকর !

# ওয়েব সাপোর্ট, আপনি আপনার সমস্যার কথা বলবেন কিন্তু কোন উত্তর পাবেন না, আপনার প্রশ্ন, প্রশ্নই থেকে যাবে।
>> একজন খুঁজে বের করলে নিশ্চয়ই টিউন করবেন (সেটা যে ব্লগেই হোক) । ব্যাস, এরপর থেকে সবাই জেনে যাবে প্রক্রিয়া । দেশী ব্র্যান্ডের ক্ষেত্রে কিন্তু এমনটিই হয়েছে …।

# ফোন রুট করা।
>>>> কোন মডেলটি রুট করতে চান ? SYMPHONY ? WALTON ? সার্চ দিয়ে দেখুনতো বস । পুরাতন মডেলগুলো তো বটেই নতুনগুলোরও পেয়ে যেতে পারেন !

# ক্যামেরা, আপনি কখনও ক্যামেরায় সন্তুষ্ট হতে পারবেন না, কেন যারা ব্যাবহার করছে তারাই জানে।
>> আপনার এরকম ভূল ধারনা হবার কারন আমি বুঝতে পারছি না ! হয়ত আপনি কোন দেশী ব্র্যান্ডের হ্যান্ডসেট ব্যাবহার করেই দেখননি ! নয়ত, ১০ হাজার টাকার ভেতরে কোন বাইরের হ্যান্ডসেটে অসাম মার্কা ক্যামেরা আপনি দেখেছেন ??

আরও কথা বলা যেত, কিন্তু আমি শুধু আপনার পয়েন্ট গুলোই ভেঙ্গে দিলাম !

আমাদের দেশের দারিদ্র হার বেশী, তাই বলে মানুষগুলোর শখতো কম নয় । তো কেনই বা আপনি এরকম করে সামর্থের মাঝে থাকা হ্যান্ডসেট গুলোর এত খুঁত তুলে ধরতে চাইছেন ?

আমি নিজেও একটা দেশী ব্র্যান্ডের স্মার্টফোন ব্যাবহার করি, যেটাকে আমি নির্দ্বিধায় এর তিনগুন দামের ব্র্যান্ডেড স্মার্টফোনের সাথে কমপেয়ার করতে পারব …। বুঝুন !

    @রুমার: ভাই আমি খুত ধরছি না, আমি বলছি যে বেসি দাম দিয়ে যেন না কিনে, আমি বলেছি যে ১০-১২ হাজারের উপর না জেতে, কারন আর কিছু এড করলেই আপনি ভাল যে কোন স্মার্টফোন কিনতে পারবেন। আর আমি ওয়ালটন ও সিম্ফনির ১০হাজারের উপরের মোবাইল ব্যাবহার করেছি আমি এদের স্পেসিফিকেশনের সাথে এদের পারফমেন্সে কোন মিল পাইনি, আর ভাই আপনি একই স্পেসিফিকেশনের দুটি সেট ব্যাবহার করে দেখতে পারেন, আপনার ধারনা বদলে যাবে। ধন্যবাদ।

    আমি নিজেও একটা দেশী ব্র্যান্ডের স্মার্টফোন ব্যাবহার করি, যেটাকে আমি নির্দ্বিধায় এর তিনগুন দামের ব্র্যান্ডেড স্মার্টফোনের সাথে কমপেয়ার করতে পারব …। বুঝুন !

    ভাইয়া আমি একটি স্মার্টফোন কিনতে চাচ্ছী দেশী কিন্তু কোনটা কিনব ঠিক বুঝতেছি না আপনি যেহুতু দেশীব্রান্ড ব্যাবহার করছেন এবং সন্তুষ্ঠ তাই যাদি আপনি বলতে যে আপনি কোন ব্রা্ন্ড ব্যাবহার করছেণ ?

walton g1 er camera zoss 😀 amar Nokia 5800 theke onek valo :@

আপনি ভুল করছেন স্যার।মার্কেট এ জেয়ে দেখুন সিম্ফনি আর ওয়ালটন কি কি সেট এনেছে।ওয়ালটন তো জেলিবিন নিয়ে আসছে ১জিবি র‍্যাম এর সাথে।

আপনি আর কোনো সুবিধা না দেখলেও আমি অনেক সুবিধা দেখছি।

Level 0

আজাইরা টিউন ……।

ভাই, কাস্টম রমের টাল পড়ে আছে। বলেন কি না আপডেট করতে পারব না? হাসালেন! 😀

Level 0

আচ্ছা symphony আর walton এর মধ্যে কোনটার ক্যামেরা কোয়ালিটি ভাল? Primo F1 এর ব্যাটারি ব্যাকআপ কেমন (নেট চালানো/গেম খেলা অবস্থায়) ?

আমি সবাইকে বলতে চাই আমি সিম্ফনি ও ওয়ালটন দুই কোম্পানির মোবাইল ব্যাবহার করেছি, আর আপনি একই স্পেসিফিকেসনের ব্র্যান্ড ও দেশি ব্র্যান্ডের মোবাইল ব্যাবহার করে দেখতে পারেন, তারপর আপনারা বলুন কে বেস্ট। আর আবারও বলছি জিনিস যেটা ভাল দাম তার একটু বেশি।

Level 0

আজব মানুষ আপনি, যারা দুয়েল ল্যাপটপ কিনে তাদের ব্রান্ডের মর্যাদা বুজাতে চাচ্ছেন।

আমি এসব লুকদের সাথে এখন একমত হয়ে যাই ননসেন্স তর্ক avoid করার জন্য।(y)

    @zakirh: ভাই বাসার ঠিকানা দেই, এসে দেখে যান কি ল্যাপটপ ব্যাবহার করি !! আর কাকেই বা কি বলব, “দোয়েল” উচ্চারন করতে যে না পারে, তার সাথে আর কি কথা ??

আমি আপনার সাথে সহমত পোষণ করছি। ১০ হাজারের উপর বাজেট হলে এই সব চায়না রি-ব্র্যান্ড করা সেট ব্যবহার না করাই ভালো। সেক্ষেত্রে ব্র্যান্ডগুলো ভাল হবে। তবে ১০ হাজারের নিচে বাজেট হলে দেশী ব্র্যান্ডগুলো খারাপ না।

Level 0

ভাই,আমি এই পর্যন্ত অনেক অ্যান্ড্রয়েডের সেট ব্যাবহার করেছি। অভিজ্ঞতা থেকে বলছি। আমার সেট গুলো হচ্ছে এলজি অপ্টিমাস ২ক্স(ডুএল কোর) ,সামসাং গ্যালাক্সী এস,এখন আছে সনি এক্সপেরিয়া আরক এস।এগুলো সব ই ব্র্যান্ড এর সেট। এগুলোর ডিস্প্লে কোয়ালিটি এতো মান সমপন্ন যে দেখলে শুধু দেখতেই মন চায়। আর ইউসার ইন্টারফেস ও অনেক ভাল।কিন্তু এগুলোর দাম অনেক বেশি। আপনারা যারা ইয়াসিন ভাই এর সাথে তর্ক করছেন, তাদের একটু বোঝা উচিৎ , আমাদের দেশীয় ব্র্যান্ড এর সেট যদি সনি,এইচটিছি,স্যামসাং এর সাথে তুলনা করা যেত, তাহলে সনি,এইচটিছি,স্যামসাং এর চেয়ে ওয়াল্টন,সিম্ফনি ইত্যাদি সেট বেশি বিক্রি হত। যদি বাজেট এর কথা বলেন তাহলে ১০ এর নিচে অনেক সেট আছে সিম্ফনি ওয়াল্টন,এবং দাম অনুযায়ী অনেক ভাল। কিন্তু এগুলোকে কখনই সনি,এইচটিছি,স্যামসাং,এলজি এদের সাথে তুলনা করবেন না।
থ্যাংকস

Level 0

ভাই আমিও ইয়াসিন ভাই এর সাথে একমত
গত মাসে walton primo g1 কিনি
ই নিয়া ৬ বার সারভিস সেন্টারে গেসি
আপনাদের যদি বিলিভ না হইয় তাহলে waltoner সারভিস সেন্টিরে গিয়া দেখতে পারেন কি পতিদিন কি পরিমান সেট নিয়া যায় মানুষ
ডিস্প্লে কোয়ালিটি এত নিন্মমানের আপনি কুব ভালো করে লখ্য করলে দেখবেন অধিকাংশ ডিস্প্লেতে কালো দাগ থাকে যা সাবাভিক ভাবে বুজা যায় না তারপর ডিস্প্লেতে পিকজেল মিসিং থাকে যা অন্ধকারে ক্যামেরা অন করলে বুজতে পারবেন
আর ব্যটারীর কথা না বললাম যারা ইউজ করে তারা বুজে
ভাই আপনারা কেন তরক করেন বুজি না samsung sony htc ইরা তো বলদ যে সুধু সুধু এদের মোবালের দাম এতো বাড়াই রাখছে আপনাদের কথা শুনে তাই মনে হয়

Jara saddher moddhe sob tuku sukh chai sudhu tader e deshi brand gula kina uchit…Ar brand er kotha ke bolbo…brand to brand e..emni emni to ar tara brand hoye jai nai.

ami boli ki vai international ar deshi ar modhe dam and quality ar differece of course ase.Ha apnar samothro upor nirbhor kore apni kon moblie use korben.R apni jodi arokom vaben je apnar budget 10 hajar ar nice tokon apnar je service golo dorkar ta international brand golo dara paben naki deshi brand golo dia paben…………………………………ai compare a ase apni choice tiq kore felben asa kora jai …..

Level 0

না ভাই একমত হতে পারলাম না।
ওয়াল্টন যদিও চায়না রি-ব্রান্ড তবুও অনেক নামী ব্র্যান্ডের সেটের থেকে অনেক ভালো। আপনারা যারা একটু বুঝে অ্যানড্রয়েড ব্যবহার করেন তাদের বলছি – Google Play Store থেকে System Info এর Apps নামিয়ে একটু চেক করেন আর গুগল এ একটু সার্চ করেন তাহলে বুঝতে পারবেন।
অনেক দাম দিয়ে নামী ব্র্যান্ড কেনার আগে তো অবশ্যই করা উচিত।

যারা উপরে উল্লেখিত সমস্যা নিয়ে ভাবছেন, তাদের জন্য বলছিঃ
১। যে কোন অ্যানড্রয়েড সেট রুট করা যায়, একটু কষ্ট করে গুগল ব্যবহার করতে হয় 🙂
২। আপনি যদি রুট করতে পারেন তাহলে আপডেট করা কোন সমস্যাই না। মোবাইল কোম্পানিগুলোও তাই করে। একটু পড়াশুনা করেন তাহলেই হবে।

আর যারা অ্যানড্রয়েড ব্যবহার করে সমস্যায় পড়েন তাদের বলছি ভাই নামী ব্র্যান্ডের মোবাইল কিনে যদি যেমন ইচ্ছে ব্যবহার করেন তাহলেও সমস্যায় পরতে হবে। অ্যানড্রয়েড ব্যবহার করলে একটু সাবধানতা অবলম্বন করতেই হবে। আমি নকিয়া লুমিয়া, স্যামসাং, সনি এরিকসন ব্যবহার করেছি এবং করছি। ওয়াল্টন ভালো বেশ ভালো এবং সিমফনির থেকে তো ভালোই। সিমফনির দাম তুলনামূলক বেশি এবং সেই তুলনায় কনফিগারেশন ভালো না।

Brand Handset = Best Quality and Service.
Non-Brand = Poor/Average Quality and Poor Service.