ADs by Techtunes ADs
ADs by Techtunes ADs

মাইক্রোসফট অফিসে বাংলা বানান পরীক্ষা করুনঃ শতভাগ কাজের টিউন!

বাংলাদেশের প্রকাশনা শিল্প এখনো আসকি (ASCII) বা বিজয় নির্ভর।  ইউনিকোড জগতে অভ্র অপ্রতিদ্বন্দ্বি হলেও মুদ্রনশিল্প, অফিস আদালতের কাজে বিজয়ের মুখাপেক্ষি হতে হয়। অনলাইনে যেসব বাংলা বানান নিরীক্ষক পাওয়া যায় যেগুলোর সবগুলোই ইউনিকোড নির্ভর।

ADs by Techtunes ADs

তাই অফিসের কাজে বিজয় দিয়ে টাইপ করা কোন ডকুমেন্টের বানান হয়তো আপনি চেক করতে পারছেন না।

এই সমস্যার সমাধান করতে এগিয়ে এসেছেন ডেভলোপার জাহিদুল ইসলাম রবি। তিনি তৈরী করেছেন শুদ্ধ শব্দ নামের অসাধারণ একটি অ্যাডইনস যা মাইক্রোসফট অফিসে ভালমত ব্যবহার করা যায়। ব্যক্তিগতভাবে আমি Windows 7 এবং অফিস 2007 এ সফলভাবে ব্যবহার করতে পেরেছি।

এর শব্দভাণ্ডারে রয়েছে ১, ০৬, ০০০ এরও বেশি শব্দ যা সম্পূর্ণ আধুনিক বাংলা বানানের নিয়ম অনুসারে প্রণীত। এটিই একমাত্র কাজের অভিধান যেটিকে প্রিন্টিং বা প্রফেশনাল কাজে ব্যবহার করা সম্ভব।

টিউটোরিয়াল

1. প্রথমে মিডিয়াফায়ারের এই লিংক থেকে ‍শুদ্ধশব্দ ডাউনলোড করে নিন। সাইজ (4.31 MB)

2. আপনার পিসিতে ইন্সপল করে নিন।

3. মাইক্রোসফট অফিস দিয়ে ডকুমেন্ট ওপেন করুন।

4. Menu থেকে Add Ins এ ক্লিক করুন-

এখান থেকে Bangla Spelling এ ক্লিক করুন।

ADs by Techtunes ADs

দেখুন আপনার টাইপকৃত ভুল শব্দটি মার্ক হয়ে সঠিক অনেকগুলো শব্দ সাজেস্ট করেছে! :)

ব্যবহার করতে সমস্যা হলে এই ভিডিও টিউটোরিয়ালটি দেখুন-

শুদ্ধশব্দের ফেসবুক পেজ  

ভাল থুকুন, সুস্থ থাকুন।

-- নেট মাস্টার।
Author: Dr. Tanzil

ADs by Techtunes ADs
Level 0

আমি নেট মাস্টার। বিশ্বের সর্ববৃহৎ বিজ্ঞান ও প্রযুক্তির সৌশল নেটওয়ার্ক - টেকটিউনস এ আমি 8 বছর 10 মাস যাবৎ যুক্ত আছি। টেকটিউনস আমি এ পর্যন্ত 68 টি টিউন ও 1841 টি টিউমেন্ট করেছি। টেকটিউনসে আমার 6 ফলোয়ার আছে এবং আমি টেকটিউনসে 0 টিউনারকে ফলো করি।


টিউনস


আরও টিউনস


টিউনারের আরও টিউনস


টিউমেন্টস

খুবই গুরুত্বপূর্ মনে হচ্ছে, ব্যবহার করে দেখি।

Bangla k niye richers korar jonno thanks

কাজের জিনিস দিলেন ভাই একটা। ধন্যবাদ

এটা কি শুধু বিজয় দিয়ে লিখা লেখার জন্য? নাকি অভ্রতেও ভুল ধরতে পারবে?

    @আ জ ব: অভ্রতে তো স্পেল চেকার এমনিতেই দেয়া আছে!
    এটা আসকি মানে বিজয়ে কাজ করে।

      @নেট মাস্টার: @নেট মাস্টার:ঐটা আলাদা একটা প্রোগ্রাম। এমএস ওয়ার্ডের এড-অন না, তাই স্পেল চেকিংএ ঝামেলা লাগে 🙁
      আচ্ছা এই সফট এর ডেভলপারকে একটু বলবেন ইউনিকোড এর জন্য “শুদ্ধ শব্দের” একটা ভার্সন ছাড়তে। তাহলে আমাদেরও উপকার হবে। 🙁

        @আ জ ব: আপনি অঙ্কুর ব্যবহার করতে পারেন। এটা ওপেন অফিসে পুরোপুরি কাজ করে। 🙂

অফিস ২০০৩ এ হবে না?

কাজের টিউন!

Level 0

খুবই কাজের জিনিস
অসংখ্য ধন্যবাদ

Level 0

অভ্র ব্যবহার করি। বিজয় বাদ দিয়েছি সেই ২০০৮ সালে।

এখন অভ্র দিয়েই ইউনিকোড এবং আসকি দুটো ফরমেটেই লেখার ব্যবস্থা আছে। স্পেল চেকারও আছে বিল্ট ইন। কি দরকার বিজয়ের।

    @শুভ: ফোনেটিক টাইপের ক্ষেত্রে কোন সমাধান নয়। ফিক্সড কিবোর্ড লে আউট প্রিন্টিং এর জন্য জরুরী। তাই বিজয়ের প্রয়োজন আছে। অভ্রের নিজস্ব কিবোর্ড বের হলে অবশ্য এই সমস্যা আর থাকেনা।

      Level 0

      @নেট মাস্টার: ভাই, প্রিন্টিং এর জন্য ASCII Font এর ব্যবহার দরকার এটা আমি জানি। আর অভ্রের লেটেস্ট ভার্শন ASCII Font সাপোর্ট করে সেটা বোধহয় আপনি জানেন। ‘প্রিন্টিং এর জন্য বিজয় লাগবে’ এই ধারনাটা একেবারে বেসিক লেবেলের ভুল। আপনি যদি বলেন প্রিন্টিং এর জন্য ASCII Font সাপোর্ট করে এমন টাইপ করার সফট লাগবে সেটা সঠিক। সেটা অভ্র হতে পারে, বিজয় হতে পারে, লেখনী হতে পারে আরো যে কোন কিছুই হতে পারে।

      আরো প্যাচ লাগাইয়া দেই, আসকি কিংবা ইউনিকোড কোন ফন্টেই লিখতে আপনার কোন সফটওয়াল লাগে না।। যেমন ইংরেজী, স্প্যানিশ, জার্মান এমন শত ভাষা লিখতে কোন আলাদা সফটওয়াল লাগে না। সফওয়ারটার দরকার হয় আমাদের বাংলার জন্য কোন সর্বজন স্বীকৃত বাংলা কীবোর্ড লে আউট নেই বলে। তখন বিজয়, অভ্র ইত্যাদি মেশিনের সাথে মানুষের মধ্যকার একটি ট্রানশ্লেটর হিসেবে কাজ করে। আশা করি আপনি এ ব্যাখ্যা জানেন।

      এখণ প্রশ্ন হলো বিজয় দিয়ে প্রিন্টিং এর কাজ করা সহজ কেন? প্রথমত আমরা ব্যবহার করি যেসব প্রিন্টিং সফট, সেগুলো অধিকাংশ ASCII Font বেজড। আর বিজয় দিয়ে আসকি ট্রান্সশ্লেশন করতে আমরা অভ্যস্ত। এই দুয়ে মিলে সবার ধারনা হলো বিজয় ছাড়া প্রিন্টিং করা যায় না।

      আপনি আমার কাছে আসেন, বিজয় সফটওয়ার যত ধরনের বাংলা ASCII Font নিয়ে কাজ করতে পারে, আমি আপনাকে দেখায়ে দেবো সেই সব ফন্ট দিয়ে অভ্র ব্যবহার করেও লেখা সম্ভব। শুধু মাত্র আপনাকে অভ্রের ডিফল্ট আউটপুট ইউনিকোড থেকে পরিবর্তন করে নিয়ে ASCII তে নিয়ে যেতে হবে। কিভাবে, সেটা অভ্রের হেলপ ফাইল পড়েলেই পারবেন। তিনটা মাউস ক্লিকের ব্যাপার।

        @শুভ: প্রিন্টিং এর জন্য বিজয় লাগবে’ এমেন কোন কথা কি টিউনে আছে?
        টিউনে আছে, “বাংলাদেশের প্রকাশনা শিল্প এখনো আসকি (ASCII) বা বিজয় নির্ভর। ইউনিকোড জগতে অভ্র অপ্রতিদ্বন্দ্বি হলেও মুদ্রনশিল্প, অফিস আদালতের কাজে বিজয়ের মুখাপেক্ষি হতে হয়।”

        অভ্র দিয়ে প্রিন্টিং এর কাজ করা যাবেনা কে বলল? বাংলাদেশের প্রকাশনা বা প্রিন্টিং শিল্প যে বিজয় নির্ভর আমি সে কথাই বলেছি। আসলে প্রফেশনার কাজের জন্য প্রয়োজন ফিক্সড কিবোর্ড লে আউট। Amar মানে আমার, এই টাইপিং সিস্টেম ইন্টারনেট জগতে জনপ্রিয় হলেও প্রফেশনালদের কাছে নয়।

        ব্যক্তিগতভাবে আমি অভ্র ও উন্মুক্ত সফটওয়ারে সমর্থক হলেও অভ্রের কিবোর্ড লে আউট দাবী করি।
        ফোনেটিক কিবোর্ড কখনোই কোন ভাষার টাইপিং সমাধান হতে পারেনা, কারণ এটা ভাষার দৈন্যতাকে বোঝায়।
        রোমান হরফ ব্যবহার করে বাংলা লেখাকে ভাষার প্রতি একটা অবিচার বলে মনে করি। আমরা বাঙ্গালী। গর্বের ভাষা আমরা লিখব নিজস্ব কিবোর্ডে। রোমান অক্ষর ব্যবহার করব কেন? পাকিস্তান 1952 তে চেয়েছিল উর্দূতে বাংলা লিখতে হবে। আজ আমরা উর্দূতে না লিখে ইংরেজীতে বাংলা লিখছি, এটা কি গ্রহণযোগ্য?

        শীঘ্রই অভ্রর উচিত নিজস্ব কিবোর্ড লে আউট বের করা এবং ফোনেটিক সিস্টেমকে নিরুৎসাহিত করা।

Level 0

১. প্রফেশনালদের কাছে জনপ্রিয় নয় কারন তারা একটা নির্দিষ্ট গন্ডির বাইরে হঠাৎ করে যেতে চায় না।
২. কারন বাংলাদেশের প্রকাশন শিল্প বিজয় নির্ভর…এই একই কথা আমিও বলেছি, এখানে আপনার সাথে আমার মতের মিল আছে।
৩. অভ্রে Amar মানে আমার, কিন্তু অভ্রে যথেষ্ট রকম কিবোর্ড ব্যবহার করা যায়। চাইলে আপনি বিজয় কী বোর্ডের মতো একটা লে আউট নিজেও বানায়ে নিতে পারেন। ( গুগলে সার্চ দিলে নাকি পাওযাও যায় 😉 )

ভাই অভ্রে শুধু ফনেটিক কীবোর্ড আছে কথাটা সর্বৈব মিথ্যা!

৪. আমার একটা আলাপ আপনি কিন্তু এড়িয়ে গেলেন। সেটা হল, বাংলা লিখতে আলাদা সফওয়ার কেন লাগবে? আমরা কেন একটি দুটি সফটওয়ার নির্ভর হবো? আমার কথা ছিল, সরাসরি বাংলায় লিখতে পারা উচিত, যেমন আমরা ইংরেজী, রোমান, জার্মান , স্প্যানিশ ইত্যাদি সব ভাষায় লেখা যায়। এমন ব্যবস্থা মাইক্রোফসট এক সময় করতে চেয়েছিল। দুই বাংলার সমস্যা এবং আমাদের বাংলাদেশে কয়েক মত গড়ে ওঠায় সেটা সম্ভব হয়নি। যেটা হওয়া দরকার।

    @শুভ: হুম। জাতীয় কিবোর্ড প্রণয়ন করলেই সমস্যার সমাধান মিটে। তবে যে জাতীয় কিবোর্ড তৈরী করা হয়েছে সেখানেও মোস্তফা জব্বার নাক ঢুকিয়েচেন দেখা যায়।