ADs by Techtunes ADs
ADs by Techtunes ADs

আরডুইনো টিউটোরিয়াল [পর্ব-১০] :: PWM কি? PWM ব্যবহার করে আরডুইনোতে অ্যানালগ সিগনাল তৈরী করার পদ্ধতি

আরডুইনো টিউটোরিয়াল

আসসালামু আলাইকুম। বন্ধুরা সবাই কেমন আছেন? আশা করছি আপনারা ধারাবাহিকভাবে আরডুইনো এর টিউটোরিয়াল দেখছেন। সেই ধারাবাহিকতায় আজ আমরা আছি ১০ম পর্বে। এই পর্বে আমরা যে বিষয়টি শিখবো সেটা হলো PWM কি? এবং PWM ব্যবাহার করে আরডু্‌ইনোতে অ্যানালগ সিগনাল তৈরী করার পদ্ধতি।

ADs by Techtunes ADs

PWM কি? PWM এর পূর্ণরুপ হলো Pulse Width Modulation. এর মাধ্যমে মূলত সিগন্যালের ডিউটি সাইকেলের মান পরিবর্তন করে ০ এবং ৫ ভোল্টের মাঝামাঝি যে কোন ধরনের ভোল্টেজ তৈরী করা যায়। অর্থ্যাৎ যাকে আমরা অ্যানালগ সিগনাল বলি। বিষয়টি ভালোভাবে বুজতে হলে প্রথমে আমাদেরকে বুজতে হবে ডিউটি সাইকেল কি? তার আগে জেনে নিই সাইকেল কি? সাইকেল হলো একটি পূর্ণ তরঙ্গ। ডিউটি সাইকেল হলো একটি সাইকেলের কতটুকু সময় ওই সিগনালটি হাই অবস্থায় ছিল তার পরিমাণ। আরডুইনোতে আমরা যখন ডিজিটাল রাইট ফাংশনের মাধ্যমে কোন কমান্ড দেই তখন আরডুইনোতে প্রতি ১ সেকেন্ড প্রায় ৯৮০ টি তরঙ্গ বা সাইকেল সম্পন্ন হয়। এই ৯৮০টি সাইকেলের প্রতিটি সাইকেলে যদি তরঙ্গটি ৫ ভোল্ট লেভেলে সর্বদা বজায় থাকে তখন আমরা আউটপুটে পিউর ৫ ভোল্ট পাই। তখন এর ডিউটি সাইকেল থাকে ১০০%। অর্থ্যাৎ তরঙ্গটির শতভাগ সময় এটি ৫ ভোল্টের লেভেলে ছিল। আচ্ছা এখন যদি এরকম হয় যে একটি তরঙ্গ তার প্রতিটি সাইকেলের ৫০% সময় ৫ ভোল্ট এবং বাকি ৫০% সময় ০ ভোল্ট অবস্থায় ছিল। তখন এই তরঙ্গের ডিউটি সাইকেল হবে ৫০%। এক্ষেত্রে আউটপুট কি হবে চিন্তা করেন তো? এখন কি আর আউটপুট ৫ ভোল্ট হবে? মোটেও না। আমরা প্রথমেই বলেছি যে আরডুইনোতে প্রতি সেকেন্ডে প্রায় ৯৮০ টির মতো সাইকেল সম্পন্ন হয়। প্রতিটি সাইকেলেরই অর্ধেক সময় সিগনালটি হাই অবস্থায় ছিল এবং বাকি অর্ধেক সময় সিগনালটি লো অবস্থায় ছিল। একটু চিন্তা করেন তো এই ঘটনাটা প্রতি সেকেন্ডে ৯৮০বার ঘটছে। এভাবে প্রতিটি সিগনালের অর্ধেক সময় হাই এবং অর্ধেক সময় লো থাকার কারণে আউটপুটে আমরা আসলে কি পাই? আমরা পাই ০ ভোল্ট এবং ৫ ভোল্টের অর্ধেক অর্থ্যাৎ ২.৫ ভোল্ট। এখন ধরুন ডিউটি সাইকেল যদি ২৫% হয় তাহলে কি হবে? ২৫% ডিউটি সাইকেলের অর্থ হলো সিগনালের প্রতিটি সাইকেলের ২৫% বা ৪ ভাগের ১ ভাগ সময় ৫ ভোল্ট বা হাই থাকে এবং বাকি সময় সিগনালটি লো থাকে। এই ঘটনাটা প্রতি সেকেন্ড ৯৮০ বারের মতো ঘটে। তাহলে আমরা ফাইনাল রেজাল্ট মানে আউটপুট কি পাবো। আমরা দেখবো আউটপুটে আমরা ৫ ভোল্টের ২৫% অর্থ্যাৎ ১.২৫ ভোল্ট। এভাবেই PWM ব্যবহার করে আমরা ০ ভোল্ট থেকে ৫ ভোল্টের মাঝামাঝি যে কোন ভোল্টেজ আউটপুটে দিতে পারবো। ভিডিওতে আমি উপরের প্রতিটি কথাই একদম উদাহরণ এবং চিত্রসহ পাশাপাশি একটি বাস্তব প্রজেক্ট করে বুজানোর চেষ্টা করেছি। ভিডিওটি দেখুন।

আশা করছি আজকের পর্বটি আপনারা ভালো করে বুজতে পেরেছেন। তারপরও যদি কারো কোন সমস্যা থাকে তাহলে অবশ্যই টিউমেন্ট করে জানাবেন।

আমাদের ফেসবুক পেজ: নাবা টেক ওয়ার্ল্ড

আমাদের ইউটিউব চ্যানেল: Naba Tech World

আমাদের এই টিউটোরিয়াল সম্পর্কে আপনাদের যে কোন মতামত বা জিজ্ঞাসা আমাদের ফেসবুক পেজে জানাতে পারেন। আমাদের ভিডিওগুলো ভালো লাগলে এবং আপনার সামান্যতম উপকারও হয়ে থাকলে অামাদের ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করার অনুরোধ থাকলো। সবাই ভালো থাকবেন, সুস্থ থাকবেন। আল্লাহ হাফেজ।

ADs by Techtunes ADs
Level 0

আমি নাদিমুল হক জুলাস। বিশ্বের সর্ববৃহৎ বিজ্ঞান ও প্রযুক্তির সৌশল নেটওয়ার্ক - টেকটিউনস এ আমি 5 বছর 10 মাস যাবৎ যুক্ত আছি। টেকটিউনস আমি এ পর্যন্ত 26 টি টিউন ও 73 টি টিউমেন্ট করেছি। টেকটিউনসে আমার 3 ফলোয়ার আছে এবং আমি টেকটিউনসে 0 টিউনারকে ফলো করি।


টিউনস


আরও টিউনস


টিউনারের আরও টিউনস


টিউমেন্টস