ADs by Techtunes tAds
ADs by Techtunes tAds

মোবাইলে উবুন্টুঃ স্মার্টফোনের দুনিয়ার নতুন প্রতিদ্বন্দ্বী

টিউন বিভাগ নির্বাচিত
প্রকাশিত
জোসস করেছেন

Ubuntu Phones

ADs by Techtunes tAds

পৃথিবীর #১ মুক্ত অপারেটিং সিস্টেম আসছে হাতের মুঠোয়। আর সঙ্গে নিয়ে আসছে এমন সব দুর্দান্ত ফিচার্স, যে স্মার্টফোন-এর জগত নরে যাবে। আজকে আপনাদের কাছে তুলে ধরব উবুন্টু-এর এই রূপকথা।

উবুন্টু টাচ্‌

স্মার্টফোনের এই অবিশ্বাস্যকর ক্ষমতাধারী অপারেটিং সিস্টেম-এর নাম দেওয়া হয়েছে উবুন্টু টাচ্‌। মার্ক সাট্‌লওর্থ ৩১ অক্টোবর ২০১১ তে ঘোষণা দেন, যে উবুন্টু ১৪.০৪ আসার পূর্বেই উবুন্টু স্মার্টফোন, ট্যাবলেট, টিভি এবং স্মার্টস্ক্রীণ সাপোর্ট করবে। ২ জানুয়ারী ২০১৩ -তে ফোনের জন্য উবুন্টু টাচ্‌ প্রথম প্রদর্শণ করা হয়। অতঃপর, ২১ ফেব্রুয়ারী ২০১৩ -তে উবুন্টু টাচ্‌ -এর ডেভেলপার্স প্রিভিউ মুক্তি পায়।

Smartphones

ফিচার্স

উবুন্টু টাচ্‌ -এর সবচেয়ে আকর্শনীয় ফিচার হলো যে এতে কোনো প্রকার বাটন নেই। আসলে কোনো বাটন নেই বললে ভুল হবে, ৩টি আছে। পাওয়ার বাটন, ভলিউম আপ ও ভলিউম ডাউন। ব্যাস। অতঃপর বাকি সব কাজ করা সম্ভব হবে উবুন্টু এর বিশেষ ফিচার ব্যবহার করার মাধ্যমে। নিচের ভিডিও-টিতে এর ৫টি ফিচার আলোচনা করা হলোঃ

এছাড়া উবুন্টু টাচ্‌-এ থাকছে ডুয়াল বুট অপশন। এর মাধ্যমে আপনার ফোন হবে অ্যান্ড্রয়েড -এর মতন, তবে যখন আপনি তা একটি মনিটর এবং কী-বোর্ড -এর সঙ্গে সংযুক্ত করবেন, তখন তা হয়ে যাবে পূর্ণ ক্ষমতাধারী একটি উবুন্টু পিসি।

তুলনা

অ্যান্ড্রয়েড বর্তমানের স্মার্টফোন মার্কেট জুড়ে ছেয়ে আছে। এর সাথে উবুন্টু টাচ্‌ পারবে কি? এদের ফিচার এর মূল তফাত গুলো জানতে নিচের ভিডিওটি দেখুনঃ

উবুন্টু এখন-ও কোনো অফিসিয়াল রিলিজ ছাড়েনি। তবে এখনই উবুন্টু অ্যান্ড্রয়েড-কে অনেক দিক থেকে পেছনে ফেলে দিয়েছে। আশঙ্কা করা যাচ্ছে, এর অফিসিয়াল রিলিজ স্মার্টফোন মার্কেট উড়িয়ে দেবে।

ADs by Techtunes tAds

অফিসিয়াল ডেমো

উবুন্টু -এর ফিচার্স এবং মার্কেট আইডিয়াস নিয়ে অফিসিয়াল একটি ভিডিও। এটি ক্যানোনিক্যাল -এর তরফ থেকে প্রযুক্তিপ্রেমীদের জন্য উপহার ধরতে পারেন।

উবুন্টু-র বর্তমান ধারায় উন্নয়ন কাজ চলতে থাকলে যে এটি সবচেয়ে শক্তিশালী ওএস-এ পরিণত হবে, তাতে কোনো সন্দেহ থাকার প্রশ্নই উঠে না। আর অ্যান্ড্রয়েড চালাতে পারে এমন সব ফোনই উবুন্টু চালাতে পারবে, তাই বিক্রীত ফোনগুলোর মধ্যেও অ্যান্ড্রয়েড ব্যবহারকারী কমে যাবে বলে ধারণা করা যায়।

উবুন্টু -এর দুর্দান্ত ফিচার্স

  • এজ টাচ্‌ - এর মাধ্যমে অ্যান্ড্রয়েড-এর বাকি বাটনগুলোর কাজ করে নেয়া যায়। ফোনের স্ক্রীনে বাম থেকে ডান (►)-এ টানলে, অ্যাপস্‌ মেনু আসে। ডান থেকে বাম (◄)-এ টানলে চলন্ত অ্যাপস্‌গুলোর মধ্যে বদলায়। নিচ থেকে উপর (▲)-এ টানলে চলন্ত অ্যাপলিকেশন-এর মেনু আসে। উপর থেকে নিচ (▼)-এ টানলে কয়েক প্রকারের সেটিংস টুগ্‌ল আসে।

  • ওয়েলকাম স্ক্রীন - উবুন্টু -তে কোনো লক স্ক্রীন নেই। আছে ওয়েলকাম স্ক্রীন।

  • হোম স্ক্রীন - উবুন্টু-র হোম স্ক্রীন অ্যান্ড্রয়েড হতে অনেক ভিন্ন। চোখ ধাধানো প্রেজেন্টেশন আর ব্যবহার উপযোগী ফিচার্স।

  • ফ্রী - হয়ত আগেই জানতেন. তবুও, এটি সম্পুর্ণ ওপেন-সোর্স একটি অপারেটিং সিস্টেম। অর্থাৎ, এর মুক্তির পরেই অ্যান্ড্রয়েড এবং এর ফিচার লেনদেন শুরু হবে বলে আশঙ্কা করা যায়।

  • ডক্‌ট পিসি - উবুন্টু -এর সবচেয়ে বড় ধামাকা হলো ডক্‌ট পিসি। অর্থাৎ, আপনার উবুন্টু ফোন-কে একটি মনিটর এবং কী-বোর্ড এর সঙ্গে সংযুক্ত করলেই পেয়ে যাবেন সম্পূর্ণ ক্ষমতা সম্পন্ন একটি উবুন্টু পিসি। শুধু তাই নয়, আপনার এই পিসি আপনার ফোন-এর সকল ইনফো পড়তে এবং পরিবর্তন করতে পারবে। অর্থাৎ, পিসি থেকেই কল করতে পারবেন!

উবুন্টু সম্পর্কে আপনিও যদি আমার সমান আগ্রহী হয়ে থাকেন, তাহলে এই অয়েবসাইট-এ যেতে পারেনঃ

http://www.ubuntu.com/phone/features

ADs by Techtunes tAds

ADs by Techtunes tAds
Level 0

আমি বীভৎস আমি। বিশ্বের সর্ববৃহৎ বিজ্ঞান ও প্রযুক্তির সৌশল নেটওয়ার্ক - টেকটিউনস এ আমি 6 বছর 2 মাস যাবৎ যুক্ত আছি। টেকটিউনস আমি এ পর্যন্ত 15 টি টিউন ও 221 টি টিউমেন্ট করেছি। টেকটিউনসে আমার 2 ফলোয়ার আছে এবং আমি টেকটিউনসে 0 টিউনারকে ফলো করি।

কিছু বলার নাই।


টিউনস


আরও টিউনস


টিউনারের আরও টিউনস


টিউমেন্টস

Level 0

thanks

ভাই এটার কোন কাস্টম রম পাওয়া যায়না। স্যামসাং এ ব্যবহার করে দেখতাম

    Level 0

    @সামিউল: Hm…apni chailei akhon smart phone e Ubuntu touch install dite parben……( Ubuntu er official page e dekhon )

    @সামিউল: এই মুহূর্তে উবুন্টু-এর কোনো অফিসিয়াল রিলিজ নেই। এখন শুধু ডেভেলপারস্‌ প্রিভিউ পাওয়া যাচ্ছে। এটা ফোন -এ ফ্লাস করলে ভালো সাপোর্ট না পাওয়ার সম্ভাবনাই বেশী।

ubuntu te emulator dia try korum 😀

স্মার্টফোন তাইলে কয়দিন পরেই কিনতেছি।

Level 0

মাথা নষ্ট… ম্যা.এএএ….ন।

jotil jinis, two in one, phone+PC…………waiting

অলরেডি HTC ফাফা ওএসের সেট ছেড়েছে।স্যামসাং সামনে টাইজেন আনতে যাচ্ছে।লিনাক্সের ভালই প্রতিযোগীতা হবে।আর ২০১৪ এর দিকে গুগল বা অ্যামাজন সম্ভবত ক্রোম ওএস দিয়ে মোবাইল হ্যান্ডসেট আনতে পারে।

    @মিজভী বাপ্পা:

    ফায়ারফক্স ওএস উদ্দেশ্য প্রতিযোগিতা করা না, ফায়ারফক্স ওএস এর উদ্দেশ্য মোবাইল প্লাটফর্মে এমন একটি ওএস নিয়ে আসা, যা সম্পূর্ণ উন্মুক্ত, গুগল আর কেনোনিকাল যতই বলুক তাদের ওএস ওপেন সোর্স কিন্তু তার পরেও অনেক কিছু বাদ রয়ে যায়।

উবুন্টু ভালই হবে

Awesum!++

কঠিন টিউন

Level 0

Thanks! Pore valoi laglo…

Awesome….tune! Thank you.

এনড্রয়েড এর কোর = লিনাক্স, উবুন্টু এর কোরও লিনাক্স .. যেই লাউ সেই কদু। উবুন্টুর গ্রাফিক্যাল ইন্টারফেস আলাদা এটা এনড্রয়েড এ থিউ ইন্সটল করেও করা যায়। পার্থক্য কিছু দেখিনা।

যেটা পার্থক্য আছে তা হল, ব্যবসায়িক প্রতিষ্ঠান জন্য গুগল সুপার লেভেলের সার্ভিস দিতে পারবে, টাকা ঢালতে পারবে, কিন্তু স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন জন্য উবুন্টু ততটা টাকার জোর দেখাতে পারবেনা।

লিনাক্স নির্ভর এনড্রয়েড আছে ওটাই থাকুক, আলাদা করে উবুন্টু বানানোর দরকার কি? বানালে নতুন কোন OS বানাক যেমনটা করেছে iOS, Windows, Symbian বা ব্ল্যাকবেরী।

    @নেট মাস্টার:
    আপনার কথার সাথে আমি একমত, কিন্তু তারপর কিছু কথা থেকে যায়, যেমন: কেনোনিকাল একটি ব্যবসায়িক প্রতিষ্ঠান, উবুন্টু মোবাইল তৈরি করা হচ্ছে ব্যবসায়ের উদ্দেশ্যে।

    পার্থক্যের কথায় আসি, গুগল তার এন্ড্রয়েড কে যতই ওপেন সোর্স করুক না কেন, কিন্তু এর নিয়ন্ত্রণ গুগলের কাছে। উবুন্টু ফোনের ক্ষেত্রে কিছুটা আলাদা। আরো অনেক পার্থক্য আছে এমন। গুগল করলেই পাবেন।

    বি:দ্র: আমি উবুন্টুর ফ্যান বয় নই, আমি ওপেন সোর্স ভালোবাসি।

    @নেট মাস্টার: এটা যেই লাউ সেই কদু নয়… আপনি যতই থিম লাগান, উবুন্টু -এর ফিচার অ্যান্ড্রয়েড -এ আনতে পারবেন না। এটা লিনাক্স বেসড হতে পারে, বাট এটা কমপ্লিটলি নিউ অপারেটিং সিস্টেম…

বাংলাদেশে কবে আসবে??

আপনার টিউন করার style-ই তো বেশি মুগ্ধ করল !!