ADs by Techtunes ADs
ADs by Techtunes ADs

গুগল নিয়ে এলো নতুন ব্রাউজারঃ ক্রোম (Chrome)

টিউন বিভাগ খবর
প্রকাশিত

ওয়েবপেজের ইতিহাস শুরু হয় আজ থেকে বহু বছর আগে। শুরুর দিকের ওয়েবসাইটগুলো ছিল প্লেইন এইচটিএমএল এর উপর ভিত্তি করে। অর্থাৎ, ওয়েবমাস্টার নিজে থেকে ওয়েবসাইটের কোন অংশে পরিবর্তন না আনলে সেই অংশ একই থেকে যেত। ধীরে ধীরে আবিষ্কৃত হতে থাকে নতুন নতুন পদ্ধতির। আছে ডাইনামিক এইচটিএমএল এর যুগ। এরপর আসে পিএইচপি, এএসপি ইত্যাদি জাভাস্ক্রিপ্ট কোড যা পুরো ওয়েব দুনিয়ার চেহারাই পাল্টে দিয়েছে। পরিবর্তন ঘটিয়েছে ওয়েবের ব্যবহারে। এখন ওয়েবসাইট আর প্লেইন সাইট হিসেবে ব্যবহার হয় না। একসময় ওয়েবসাইটে শুধু লেখা আর ছবি থাকতো। কালের বিবর্তনে সেই সাইটে যুক্ত হতে থাকে নতুন নতুন ইনোভেশন।

ADs by Techtunes ADs

আজকের দিনে আমরা যেসব ওয়েবসাইট ভিজিট করি, তাদের অধিকাংশই শুধু ওয়েবপেজ নয়, বরং তাদের বেশিরভাগই অ্যাপ্লিকেশন। এমনই একটি বক্তব্যের মধ্য দিয়ে পরবর্তী প্রজন্মের ওয়েবসাইট বা ওয়েব অ্যাপ্লিকেশনের উপযোগী করে গুগল প্রথমবারের মত তৈরি করল ওয়েব ব্রাউজার, ক্রোম। নতুন এই ব্রাউজারটির বেটা সংস্করণ আজ ২ সেপ্টেম্বর রাত ১২ টায় ওয়েবে ছেড়েছে গুগল। এই ব্রাউজারটি নিয়ে গুগল খুব আশাবাদী। কারণ, গুগল এই ব্রাউজারকে বর্তমান ও ভবিষ্যতের ওয়েবসাইটের উপযুক্ত করে সৃষ্টি করেছে। গুগল বলছে, আগে ভিজিটররা শুধু ওয়েবসাইট ভিজিট করতো কিছু সংবাদ বা টেক্সট ও ইমেজের জন্য। কিন্তু এখন নেট ব্যবহারকারীরা ওয়েবসাইটে চ্যাট করছে, ফাইল আপলোড করছে, ভিডিও দেখছে, ভিডিও অডিও আপলোড করছে, গেমস খেলছে ইত্যাদি আরো নানাবিধ উন্নত প্রযুক্তির কাজকর্মে জড়িত যা ওয়েবের প্রথমদিকের ইতিহাসে ছিল না। ওপেন সোর্স হিসেবে গুগলের নতুন ব্রাউজার ক্রোমকে পরিচয় করাতে গুগল ব্যবহার করেছে একটি কমিকসের। কমিকসটি দেখতে এখানে ক্লিক করুন।

গুগলের নতুন ব্রাউজার ক্রোম তাদের যাত্রা শুরু করলো আজ থেকে। যদিও তারা তাদের ক্রোমের প্রতি ব্যবহারকারীর দৃষ্টি আকর্ষণ করছে কার্টুনের মাধ্যমে, তাদের এই ক্রোমে সংযুক্ত হয়েছে অত্যাধুনিক কিছু ফিচার। এছাড়াও গুগল দাবী করছে ক্রোম বর্তমানের সবচাইতে দ্রুততম ওয়েব ব্রাউজার যা একজন ব্যবহারকারীকে দেবে পরিপূর্ণ ইন্টারনেট সার্ফিং এর আনন্দ।

গুগলের মতে, ক্রোমের যাত্রা সবে মাত্র শুরু। এর মূল লক্ষ্য থেকে ক্রোম এখনো অনেক দূরে। তাই পরীক্ষামূলক সংস্করণ হিসেবে গুগল রিলিজ করলো ক্রোমের উইন্ডোজ ভার্সন। তবে খুব শীঘ্রই ক্রোমের লিনাক্স ও ম্যাক এর সংস্করণও ওয়েবে মুক্তি পাবে।

ADs by Techtunes ADs
Level 0

আমি মো. আমিনুল ইসলাম সজীব। বিশ্বের সর্ববৃহৎ বিজ্ঞান ও প্রযুক্তির সৌশল নেটওয়ার্ক - টেকটিউনস এ আমি 10 বছর 11 মাস যাবৎ যুক্ত আছি। টেকটিউনস আমি এ পর্যন্ত 85 টি টিউন ও 202 টি টিউমেন্ট করেছি। টেকটিউনসে আমার 5 ফলোয়ার আছে এবং আমি টেকটিউনসে 0 টিউনারকে ফলো করি।


টিউনস


আরও টিউনস


টিউনারের আরও টিউনস


টিউমেন্টস

মনে বড় আফসোস …… এটা নিয়ে লেখার জন্যে প্রিপারেশন নিয়ে নিয়েছিলাম …… আমিনুল ভাই লিখে ফেলল …. যাক গে …. একজন লিখলেই হত ,,,, ধন্যবাদ।

আপনাদের সবাইকে রমজানের শুভেচ্ছা।

Level 0

ধন্যবাদ নতুন খবরটা দেওয়ার জন্য।

টিনটিন ভাই, দুঃখিত। আগে জানলে আমি লিখতাম না। আপনি নিশ্চয়ই আরো দারুণভাবে লিখে পাঠকদের উপহার দিতে পারতেন।

আমিনুল, অনেক ভাল রিভিউ হয়েছে। তবে এটি ব্যবহার করা আমার কাছে বিপদজনক মনে হয়েছে। বিষয়টি নিয়ে সা.ই ব্লগে লিখেছি.. এখানেও এক কপি দিয়ে দেব কিনা ভাবছি…

এনিওয়ে… নাইস সাইট! ভাল লাগলো।

সামহোয়্যারইনে ওই টপিক টা আমি পড়েছি …. ব্যাপারটা আমার কাছে নিছক মনে হয়েছে। ব্রাউজারটা যেহেতু নতুন তাই এটা বাগি হওয়া অস্বাভাবিক কিছু না।
মনে রাখবেন …… গুগলের টেকনোলজি যা তা না। তবে আরেকটা জিনিস, আমি কিন্তু মজিলা ছাড়ছি না।

ধন্যবাদ আপডেটটা জানানোর জন্য। আমার কাছে মনে হয় গুগলের আরও সময় লাগবে। তবে এটা কি মাইক্রোসফটকে একটা সংকেত দেওয়া যে আমারা (গুগল) ওএস ও বানিয়ে ফেলতে পারি?

@ সোহান ভাই- ফায়ারফক্স ছাড়ার প্রশ্নই আসেনা। মাখন এর মত এক্সটেনশন পাব কই। তবে ভাল হইছে যে ইন্টারনেট এক্সপ্লোরার এর ব্যবহার কমছে।

@শফিউল – আশঙ্কাটা মিছে নয়।

@ আমিনুল – তুমি তো গুগল ফ্যান। ক্রোম নিয়ে তোমার অনুভূতি তো জানলাম না।

সবাইকে রমজানের শুভেচ্ছা।

Level 0

@প্রযুক্তিবিদ ভাই -ইন্টারনেট এক্সপ্লোরার এর ব্যবহার শুধু কমছে না, বরং বন্ধ হয়ে যাচ্ছে।

কবে যে এদেশের মানুষ Microsoft-এর OS ব্যবহার বন্ধ করবে এখন শুধু তারই অপেক্ষা…

আমরা চাইলে সবাই উবুন্টু ব্যবহার করতে পারি ।

-জয় উন্মুক্ত সোর্স কোড ।

@ শফিউল ভাই, গুগল আর ডেল মিলে একটা অপারেটিং সিস্টেম বানাবে বলে শোনা যাচ্ছে। বানানোই উচিৎ। মাইক্রোসফটের একচেটিয়া ব্যবসা আর ভাল লাগছে না।

আর অনেকেই ইন্টারনেট এক্সপ্লোরার নিয়ে মন্তব্য করছেন দেখলাম। কিন্তু আমার বক্তব্য হচ্ছে, বাংলাদেশের অধিকাংশ মানুষই এখনো ইন্টারনেট ব্যবহার করেন বিভিন্ন সাইবার ক্যাফে থেকে। আমি নিজেও তেমনই একজন। যদি ইন্টারনেট এক্সপ্লোরার না থাকতো, তাহলে আমি নিজেই টেকটিউনস দেখতে পারতাম না। আসলে আমরা সবাই নিজেরা আরামে বা সুবিধায় আছি বলে না ভেবেচিন্তেই বলে ফেলছি ইন্টারনেট এক্সপ্লোরার নিয়ে নানাকথা। আমাদের বাংলাদেশি ইউনিকোডেড সাইটগুলোর জন্যই ইন্টারনেট এক্সপ্লোরার গুরুত্বপূর্ণ।

@ মেহেদী ভাই, ঠিকই বলেছেন। আমার অনুভূতিটাই এখনো বলা হয়নি। আসলে আপনাদের সবার মন্তব্য মোবাইলে জিমেইল ইনবক্সে দেখছিলাম কিন্তু সময়ের অভাবে নেটে বসতে পারছিলাম না। তাই শেয়ার করা হয়নি। এখন বলছি, গুগল ক্রোমকে নিয়ে অধিকাংশ মানুষের মত আমি হতাশ নই। টিনটিন ভাইয়ের সাথে আমি একমত। গুগলের টেকনোলজি যা তা না। আর ক্রোম যেহেতু গুগলের ইতিহাসের সর্বপ্রথম ব্রাউজার, তার উপর এটা আবার সর্বপ্রথম বেটা সংস্করণ, এতে বাগ না থাকাটাই বরং অস্বাভাবিক। আমাদেরকে আরো অপেক্ষা করতে হবে এর ফুল এন্ড ফাইনাল ভার্সনের জন্য। শুধু বাংলাদেশেই নয়, পুরো পৃথিবীর ব্লগোস্ফিয়ারে গুগল ক্রোমকে ব্যর্থতা বলে উদ্ধৃত হলেও, আমি বিশ্বাস করি ব্যর্থ বা সার্থক হিসাব করার সময় এখনও আসেনি। গুগল ক্রোম নিশ্চয়ই পারবে কোটি কোটি ব্যবহারকারীর মন জয় করতে। তাদের প্রথম সংস্করণের ইন্টারফেসটা তো অন্ততঃপক্ষে মানুষের দৃষ্টি আকর্ষণ করতে সক্ষম হয়েছে। তাই না!

এই ব্রাউজার িদেয় প্রথমআেলা পিত্রকার বাংলা ফন্টগুেলা পড়া যায়না। িকভােব পড়া যােব েকউ িক জানােবন?

প্রথম আলো ইত্তেফাক এগুলো ইউনিকোড সাইট না। তাই এ সাইট গুলো ইন্টারনেট এক্সপ্লোরার ছাড়া অন্য ব্রাউজার যেমন ফায়ারফক্স, অপেরা, গুগল ক্রোম দিয়ে পড়ার জন্য ওরা যে ফন্ট গুলো ব্যবহার করে সাইট তৈরি করেছে সে গুলো আপনার ফন্ট ফোল্ডারে ইন্সটল করতে হবে। আর সাইট কী ফন্ট ব্যবহার করেছে সেটা আপনি সাইটের বাংলা সাহায্য, বাংলা হেল্পে গেলেই পেয়ে যাবেন। প্রথম আলোর জন্য লিংকটি হল http://www.prothom-alo.com/help/। ইত্তেফাকের জন্য http://www.ittefaq.com/content/site/font.php .