ADs by Techtunes tAds
ADs by Techtunes tAds

Movie Review Poramon 2 [পোড়ামন ২ রিভিউ] Best BD Movie

টিউন বিভাগ অন্যান্য
প্রকাশিত
জোসস করেছেন

মুভি টি ২০১৮ এর সারা জাগানো একটি বাংলা মুভি। মুভি থির সংখিপ্ত review দেয়া হল

ADs by Techtunes tAds

অভিনয়েঃ পূজা চেরী, সিয়াম আহমেদ, সাঈদ বাবু, নাদের চৌধুরী, রেবেকা, চিকন আলী, ফযলুর রহমান বাবু, আনোয়ারা, পিয়াল ভাই প্রমুখ।

পরিচালনাঃ রায়হান রাফি

চিরচেনা রোমান্টীক বাংলা সিনেমা্র স্টার্টিং এ দেখা যায় নায়ক গরীব, নায়িকা ধনী। তারা প্রেমে পড়ে, পালিয়ে বিয়ে করে, মেয়ের বাবা ছেলেকে বলে- “তুই চৌধুরী বাড়ির মেয়ের সাথে প্রেম করছিস। তোর এত বড় সাহস। তুই আমার মেয়েকে কি সুলহী রাখতে পারবি? আমার মেয়ের এক মাসের খরচ তোর পরিবারের পুরো বছরের খরচের দ্বিগুণ। ব্লাহ ব্লাহ ব্লাহ। “ ঢিসুম ঢিসুম হয়। সিনেমার শেষে পুলিশ এসে বলে “আইন নিজের হাতে তুলে নিবেন না, ইত্যাদি ইত্যাদি। নায়ক নায়িকার মিলন হয়। চৌধুরী সাহেব তার মেয়ে জামাইকে ক্ষমা করে দেয়। ব্যাস সিনেমা শেষ। কিন্তু পোড়ামন ২ এ তা হয়নি। প্রথা ভেঙে বেরিয়ে এসেছেন নির্মাতা। নতুন প্রেমের কাহিনী সকলের মন পুড়িয়েছে।

থ্যাংক্স টু জাজ মাল্টিমিডিয়া, আব্দুল আজিজ ভাই, রায়হান রাফি এতো সুন্দর একটি সিনেমা উপহার দেওয়ার জন্য। দেশীয় বাংলা সিনেমা আশার আলো দেখবে এ ধরনের মৌলিক সিনেমার মাধ্যমে।

কাহিনী, চিত্রনাট্য ও সংলাপঃ

প্রথমেই বলি এই সিনেমার কাহিনী মৌলিক। পুরোপুরি ইউনিক স্ক্রীপ্ট এর সিনেমা “পোড়ামন ২ “। ৯০ দশকের প্রেক্ষাপটে নির্মিত সিনেমা। সিনেমাটি সুজন শাহ ও পরী কে নিয়ে। এ সিনেমাতেও ধনী-গরীব বিষয়টি আছে। কিন্তু পুরনো ফ্লেভার নেই। গল্পে নতুনত্ব আছে। একজন সালমান শাহ ভক্ত আছে। সিনেমার চিত্রনাট্য অত্যন্ত যত্নের সাথে তৈরি করা হয়েছে। পরিচালক টুইস্ট বজায় রাখতে পেরেছেন। আমি আন্দাজ করার চেষ্টা করেছি যযে এরপর এটা হবে। কিন্তু না আমি বারবার ভুল প্রমাণিত হয়েছি। সিনেমার চিত্রনাট্য আমাকে মুগ্ধ করেছে। সংলাপ গুলো মন ছুঁয়ে যাওয়ার মতো। গতানুগতিক ধারার বিপরীত চিত্রনাট্যে নির্মিত “পোড়ামন ২”। ট্রেলারে একটা সংলাপ ছিল – “ভালোবাসা যদি পাপ হয়, তাহলে তুমি কেন মানুষের মনে এত ভালোবাসা দিলা? বড়পর্দায় শোনার পর অজান্তেই চোখের কোণে পানি চলে এসেছিল। সিনেমার শেষ টা দেখে আমি বাকরুদ্ধ। বাংলা সিনেমার গল্প এরকম-ও হতে পারে? গ্রাম বাংলার সরল-সহজ প্রকৃতির সিনেমা “পোড়ামন ২”।

অভিনয়ঃ
★Pujja Cherry - “নূরজাহান” এর এন্ট্রি সিন দেখার পর-ই বলেছিলাম যে এই মনে অনেক বড় কিছু করবে আগামী সিনেমাগুলোয়। সেই রকম-ই পেয়েছি তাকে। এ যেন অন্য পূজা চেরী। এত সাবলীল আর ন্যাচারাল অভিনয় সিনিয়রদের মাঝেও কমে গেছে। পূজা মুগ্ধ করতে পেরেছে কারণ সে নিজেকে “পুজা” না পরী হিসেবে দেখাতে পেরেছে। নতুন হিসেবে অনেক ভালো করেছে পূজা। “পোড়ামন ২ “ দেখার পর তাকে কেউ ভুলতে পারবে না। শুভকামনা রইলো পরী ওয়ফে পূজা চেরী।

★Siam Ahmed - এক কথায় অসাধারণ। সিনেমার ১ম হাফ আর বিরতির পর যেন তাকে চেনা দায়। সুজন শাহ আর সুজন কামলা দুইটি ভিন্ন মানুষ। সালমান শাহ এর ভক্ত সুজন শাহ নিজেকে সত্যিকারের ভক্ত হিসেবে প্রমাণ করতে পেরেছেন। সিনেমার এন্ট্রি সিন এর পর শেষের সিন পর্যন্ত ভেবেছি যে আসলে সিয়াম আহমেদ কি? রোমান্স থেকে শুরু করে ইমোশন সবকিছুর-ই ফুল প্যাক সিয়াম আহমেদ। ভক্তের পাগলামি কেমন হয় তা সিয়াম আহমেদ থুড়ি সুজন শাহ কে না দেখলে বোজা দায়। আর ভালোবাসা কি তা সুজন কামলা কে না দেখলে বোঝা যাবে না। সিনেমা হলের নারী দর্শক রা সুজন কামলা বলে চিৎকার করছিলেন, কাঁদছিলেন। এখানে “কামলা” যেন শ্রমিক নয় ভালোবাসার আরেক ডাক।

★ সাঈদ বাবুঃ “ভাল্লাগছে খুব ভাল্লাগছে” ডায়লগ টা সিনেমা শেষ হওয়ার পর-ও সকলের মুখে মুখে ছিল। চমৎকার অভিনেতা আপনি। থাপ্পড় মারার সিনগুলো রিয়েলিস্টিক লেগেছে। ডায়লগ ডেলিভারী ভালো ছিল। আশা করি আপনাকে সিনেমায় নিয়মিত পাবো।
★ফযলুর রহমান বাবুঃ আপনারা তাকে চরিত্র দেন উনি তা প্লে করে দেখাবেন। তার কাছে যেন কোণো কিছুই কঠইন না। “পোড়ামন ২” এ তার উপস্থিতি কম সময়ের হলেও তিনি যে জাত অভিনেতা তা প্রমাণ করে দিয়েছেন। তার উপস্থিতি সকলের নজর কেড়েছে। কি অসাধারণ অভিনয়শৈলী আর ডায়লগ ডেলিভারী। পরিচালক তাকে আরো একটু স্পেস দিতে পারতেন। Fazlur Rahman

ADs by Techtunes tAds

★বাপ্পারাজঃ কেন জানি মনে হয়েছে উনি নিজেকে চরিত্রের সাথে মানিয়ে নিতে পারেন নি। হয়তো দীর্ঘদীন পর চলচ্চিত্রে কাজ করা মূল কারণ হতে পারে। তবুও কামব্যাক চলচ্চিত্র হিসেবে ভালো। ভালো সিনেমার মাধ্যমে ফিরে এসেছেন।

★নাদের চৌধুরীঃ সিনেমার একজন বাবার চরিত্রে আছেন তিনি। তার অভিনয় ভালো লেগেছে। নিজেকে চৌধুরী সাহেব প্রমাণ করেন নি উনি এটাই তার বড় সার্থকতা। নতুন গল্পের অভিনয়ে নতুনত্ব বজায় রেখেছেন তিনি।

পাশাপাশি পিয়াল ভাই ও বেশ দারুণ কাজ করেছেন। আনোয়ারা বেগম, রেবেকা, চিকন আলী সবাই যার যার সেরা কাজ করার চেষ্টা রেখেছেন। দুইজন শিশুশিল্পী ছিল। তারাও জমিয়ে দিয়েছিল সিনেমাটি।

সংগীতঃ সিনেমায় মোট গান ছিল ০৭ টি। গানগুলো শ্রুতিমধুর ছিল। সালমান শাহকে ট্রিবিউট করা গান, ওহে শ্যাম, সুতো কাটা ঘুরি সবাই শিনেছি ইতোমধ্যে। কিন্তু আরো তিনটি গান ছিল যা পাবলিশ করা হয়নি। খালি গলায় “কিছুদিন মনে মনে” গানটা বেশ লেগেছে। কেন পিরীতি বাড়াইলা রে বন্ধু আর ন্যান্সির গাওয়া টাইটেল ট্র্যাক। বলতে গেলে সিনেমার ৪টি বেস্ট গান ছাড়া হয়নি। এ সিনেমার গানগুলো গল্পের প্রয়োজনে ব্যবহার করা হয়েছে।

ব্যাকগ্রাউন্ড স্কোর মনোমুগ্ধকর। বিশেষ করে কাকের ডাক, বৃষ্টির শব্দ সবকিছুই এখনো কাজে বাজছে।

সিনেমাটোগ্রাফিঃ সিনেমাটোগ্রাফি চমৎকার ছিল। সাথে কালার গ্রেডিং, মিক্সিং ভালো ছিল। ড্রোন শট দেখে মন ভরে গেছে। দেশের গামকে নতুন ভাবে আবিষ্কার করেছি এ সিনেমায়। ডিওপি কে আন্তরিক ধন্যবাদ।

সবমিলিয়ে “পোড়ামন ২” এর গল্প প্রয়োজন মতো এগিয়ে গেছে। শেষ দৃশ্য দেখে সবাই জাস্ট শকড। বাংলা সিনেমাও এমন হয়? তাই ভাবনা বদলে দেবার নির্মাণ এ সি্নেমা। বাংলা সিনেমার প্রতি সবার ভাবনা বদলে দিতে সক্ষম হয়েছে এ সিনেমা। যার ক্রেডিট পাবে “পোড়ামন ২ “ টীম।

“পোড়ামন ২” ২০১৩ সালে মুক্তিপ্রাপ্ত সিনেমা “পোড়ামন” এর সিক্যুয়েল নয়। দুইটা সিনেমার গল্প-ই মন পোড়ায় তাই নাম দেওয়া হয়েছ্র পোড়ামন ২। সিনেমার নাম সার্থক হয়েছে। আমার সময় ও সার্থক।

আমি ডিরেক্টর কে নিয়ে কিছু বলিনি। বেশি কিছু বলবো ও না। সিনেমা দেখে ব্যাপক ঘোরের মাঝে আছি। হ্যাটস অফ টু ইউ। তারপর-ও বলতে হয় আপনার প্রথম কাজ হলেও কিন্তু ওসাধারণ কাজ পোড়ামন ২। "দহন" এর অপেক্ষায় রইলাম। Raihan Rafi

সিনেমা হলে গিয়ে "পোড়ামন ২" দেখুন। মুগ্ধতা নিয়ে হল থেকে বেরিয়ে আসুন। পুরো সময় গল্পের মাঝে আটকে থাকবেন। চিপস-কোক নিয়ে হলে ঢুকবেন না কারণ তা খাওয়ার কথা আর মনে থাকবে না। পুরোটা সময় গল্পের ভেতর ঢুকে থাকবেন। কারণ এ সিনেমা আপনাকে হাসাবে ও কাঁদাবে। হাসতে হাসতে চোখে পানি আসবে। আবার মনের অজান্তেই চোখ ভিজে যাবে।

ADs by Techtunes tAds

এটি এ বছর এখন পর্যন্ত সেরা রোমান্টিক সিনেমা। যার নাম “পোড়ামন ২”

Abdul Aziz ভাই “পোড়ামন ২”, “শনিবার বিকেল”, “দহন” এসব সিনেমা নির্মাণ করে মানুষের ভাবনা বদলে দিন।

ADs by Techtunes tAds
Level 0

আমি আসিরুল হাসান। বিশ্বের সর্ববৃহৎ বিজ্ঞান ও প্রযুক্তির সৌশল নেটওয়ার্ক - টেকটিউনস এ আমি 8 মাস 3 সপ্তাহ যাবৎ যুক্ত আছি। টেকটিউনস আমি এ পর্যন্ত 2 টি টিউন ও 0 টি টিউমেন্ট করেছি। টেকটিউনসে আমার 1 ফলোয়ার আছে এবং আমি টেকটিউনসে 1 টিউনারকে ফলো করি।


টিউনস


আরও টিউনস


টিউনারের আরও টিউনস


টিউমেন্টস

টেকটিউনস টিউন গাইডলাইনের সর্বশেষ আপগ্রেডেড ৬ষ্ঠ সংস্করণ প্রকাশ পেয়েছে। টিউন করুন টেকটিউনস টিউন গাইউলাইন মেনে। জেনে নিন কিভাবে টিউন করলে আপনার টিউন Rank করবে এবং জানুন কোন কোন বিষয় আপনার টিউনে থাকলে আপনার টিউন Rank করবে না।