ADs by Techtunes ADs
ADs by Techtunes ADs

নিয়নবাতি [পর্ব-০২] :: বিনামূল্যে তৈরী করুন ই কমার্স ওয়েবসাইট আর শূন্য পকেটেই শুরু করুন বিজন্যেস

টিউন বিভাগ আউটসোর্সিং
প্রকাশিত
জোসস করেছেন

ই-কমার্স বিজন্যেস: আসলে ই-কমার্স বিজন্যোসের পরিসর অসীম এবং যুগের সাথে তাল মিলিয়ে এটার কদর ও চাহিদা দিনদিন বাড়ছে এবং নিয়ত বাড়বে তাতে সন্দেহ নেই।
আলিবাবা ডট কম যেমন শুধুমাত্র একটা ওয়েবসাইটের নাম হতে এখন ওয়ার্ল্ড ফেমাস ব্রান্ডে পরিণত হয়েছে তেমনি আপনিও চাইলে শুরু হতে স্বল্প পরিসরে নিজের ই কমার্স বিজন্যেস শুরু করতে পারেন। এটাও আউটসোর্সিং এবং ফ্রিল্যান্সিং এর সাথে পরোক্ষভাভাবে জড়িত (থিংক উইথ ইউর কমনসেন্স)।
আজ বিনামূল্য ই-কমার্স ব্যবসা শুরু করার একটি আইডিয়া শেয়ার করছি সেটাতে সাকসেস হওয়া না হওয়া আপনার ওপর নির্ভর করবে কেননা "সফলতা ভাগ্যে নয় হাতে লেখা থাকে"।

ADs by Techtunes ADs

কেমন হবে ই- কমার্স ব্যবসা?
আপনি চাইলে অনলাইনে একটা ভার্চুয়াল শপিং সেন্টার দিতে পারেন যেখান হতে পাবলিকেরা কেনাকাটা করবে আর লাভ তথা ইনকাম আপনার পকেটে ঢুকবে। ভার্চুয়াল শপ হওয়ায় অন্তত দোকান ভাড়া, দোকান কন্টাক্ট মানি অন্তত বেঁচে যাবে সেটাও তো কম কথা নয়।
মূলত ভার্চুয়াল শপ বলতে আমি একটা ওয়েবসাইট খোলার কথা বলছি যেখানে আপনি আপনার প্রোডাক্ট বিক্রি করতে পারেন.সোজা সাপ্টা জবাব।

ওয়েবসাইট বানাতে টাকা লাগে না?
অবশ্যই ওয়েবসাইট বানাতে ডোমেইন আর হোস্টিং কেনা লাগে আবার ডিজাইন এবং ডেভলপ করতেও তো টাকা লাগবে তাহলে?
সুতরাং আমরা ফ্রি তে ফেবুলাস কিছু করতে সাবডোমেইন চয়েজ করতেই পারি আর হোস্টিং, সেটআপ ঝামেলা এড়াতে আপনি ব্লগার চয়েজ করতে পারেন। সবার আগে http://www.blogger.com ওয়েবসাইটে যান এবং নিজের জিমেইল দিয়ে সাইনআপ করে একটা ফ্রি ব্লগসাইট তৈরী করুন, ব্যাস আপাতত কাজ শেষ!

শপিং সেন্টার কিভাবে বানাবেন?
সবার আগে আপনি দুইটা ফাইল ডাউনলোড করে নিন X এবং Y এরপর আপনি আপনার ব্লগসাইটের Theme অপশনে যান > Backup & Restore যান > এরপর ঐ ডাউনলোড করা X ফাইলটি আপলোড করুন ; ব্যাস আপনার শপিং সেন্টার তৈরী।
আর হ্যা, মোবাইল ভার্সনে সেটিংস আইকন ক্লিক করে সেটা ডেস্কটপ মোড করে দিন তাহলেই এনাফ!

কিভাবে ওয়েবসাইট মেইনটেন্ট করবেন?
আপনার ডাউনলোড করা Y ফাইলটিতে আপনি আপনার ওয়েবসাইট তথা ব্লগসাইট পরিচালনা করার যাবতীয় নির্দেশনা পাবেন। সেখান হতে আপনি আপনার ওয়েবসাইটের কালার চয়েজ করা, কিভাবে প্রোডাক্ট টিউন হিসেবে আপলোড করবেন, কিভাবে পেমেন্ট যুক্ত করবেন, কিভাবে আপনার সোস্যাল পেইজ প্লাগিন যুক্ত করবেন ইত্যাদি যাবতীয় গাইডলাইন পাবেন।
এটা খুবই সিম্পল একটা মেইনটেইন ব্যবস্থা যা আপনি নিজেই করতে পারবেন।
আর ওয়েবসাইটের নিচের ঐ Sora template কিভাবে রিমুভ করবেন? এটার জন্য অবশ্য আপনাকে পেইড টেম্পলেট কিনতে হবে তবে যেহেতু আমি "ফ্রি" বলেছি তাই আপনার ভেতর যদি কোডিং দক্ষতা থাকে তবে এইচটিএমএল কোড এনালাইসিস করে তা এডিটও করতে পারেন, তাহলে টাকা খরচ করার দরকার কি?

শপিং সেন্টারে কি কি থাকবে?
আপনি এখানে আপনার প্রোডাক্ট আপ করতে পারবেন, কাস্টমার তা কার্টে যুক্ত করতে পারবে, আপনি ছবিসহ দাম নির্ধারন করে দিতে পারবেন, আপনি প্রোডাক্টের ডিটেইলস যুক্ত করতে পারবেন, পেমেন্ট সিস্টেম যুক্ত করতে পারবেন তথায় একটা ডাইনামিক স্ট্যান্ডার্ড শপিং সেন্টার তৈরী করতে পারবেন।

কাস্টমার কোথায় পাবেন?
এখানে ওয়েবসাইটের ভিজিটর মানেই আপনার কাস্টমার তাই তাই আপনি SEO করতে পারেন, আর ব্লগার যেহেতু গুগলের একটা প্রোডাক্ট তাই SEO ব্যাপারটা এক লিংকেই ল্যাটা চুকে যাওয়া মতোন ইজি ব্যাপার।

ব্লগার তো সাবডোমেইন, এইটা দেখতে জানি কেমন লাগে?
তাহলে চাইলে আপনি ফ্রি dot.tk তে রেজিস্টার করে তাতে লিংক ফরোয়ার্ড করে নিতে পরেন তাহলেই তো হয়ে গেল খাসা একটা ডোমেইন?
লো লোবেল ডোমেইন?! আরে বাপু.পাবলিক চায় বেস্ট সার্ভিস তাই আপনার শপিং সাইট ভালো হলে তখন আর লো লেবেলের জন্য Low হয়ে রইবে সেটা তখন High ডিমান্ড স্যাটিসফাইড হবে।

টাকা তো নাই তাহলে প্রোডাক্ট কিনবো কিভাবে?
দেখুন আজকাল অনেক সাইট পে করার পর তারপর প্রোডাক্ট ডেলিভারি করে তাই আপনি চাইলে ক্রেতার টাকা হতে প্রোডাক্ট কিনে তারপর তা ডেলিভারি দিতে পারেন বাকিটা তো আপনারই ইনকাম। তবে এ ব্যাপারে আরো স্মার্ট এবং কালেকশনের সাথে কন্ট্রিবিউশন, রেপুটেশনের সাথে আপোষহীন কম্পিটিশন থাকাও জরুরি কেননা রেপুটেশন ইজ এভরিথিং ফর বিজন্যেস।

এর চেয়ে ভালো কিছু হয়না?
আপনি যদি এমন বিজন্যেসে একটু বিব্রত হন তবে অনলাইনে এমন অনেক হাই ফাই শপিং সেন্টার/ শপ আছে যারা তাদের প্রোডাক্ট বিক্রি করে দেবার বিপরীতে আপনাকে একটি লভ্যাংশ দিবে, আপনি শুধু জাস্ট আপনার সাইটে বিজ্ঞাপণ দিবেন আর সেখান হতে সেল হলেই আপনার ইনকাম।

ADs by Techtunes ADs

টাকা ইনকাম করার আরো কি কিছু ম্যাজিক আছে?
আপনার সাইটে বিক্রি না হলে আপনার ইনকাম নেই তাহলে কি সারাদিন আঙ্গুল চুষবেন?
আপনি চাইলে আপনার সাইটে গুগল এডসেন্স বসিয়েও ভিজিটর হতে ইনকাম করতে পারেন।
আর গুগল মামা এডসেন্স না দিলেও চিতিকা কিংবা রিভিনিউহিটস তো আছেই; মন্দ কি হে?

কতো টাকা ইনকাম করতে করতে পারবেন?
দেখুন আপনি হয়তো একদিনে কোটিপতি হয়ে যাবেন না কিন্তু চেষ্টা পরিশ্রম আর নিষ্ঠা থাকলে আপনিও হয় যেতে পারেন খুলজা সিমসিম আলি বাবা!

ডেমো কোই?
এখন এতো বকবক করলাম কিন্তু ডেমো না দেখতে পারলে তো আর হইলো না তাই শুধুমাত্র দেখানোর সুবিধার্থে আমার তৈরী করা একটি শপিং শপ হলো http://www.happyshoppingbd.blogspot.com
(সাইটে কোন ডিজাইন কিংবা সাজানো হয়নি শুধুমাত্র দেখানোর জন্যই এটা ক্রিয়েট করা হলো)

শেষকথা: এইটা কি আবার আউটসোর্সিং হইলো নাকি?
আচ্ছা ঠিক আছে তবে জেনে নিন ইন্টারনেট হতে ইনকাম মানেই আউটসোর্সিং সেটা হউক ফিল্যান্সার কি ফেসবুক তাতে আবার কি যায় আসে হুমম?

ফাইল ডাউনলোডে সমস্যা হলে কিংবা টিউটোরিয়াল বুঝতে প্রবলেম হলে আমাকে ফেসবুকে জানাতে পারেন আমি যথাসাধ্য সহায়তা করার চেস্টা করবো ইনশাল্লাহ।
ফেসবুকে আমার বন্ধু হওয়ার নিমন্ত্রণ রইলো → নিশান আহম্মেদ নিয়ন

আল্লাহ হাফেজ

ADs by Techtunes ADs
Level 2

আমি নিশান আহম্মেদ নিয়ন। বিশ্বের সর্ববৃহৎ বিজ্ঞান ও প্রযুক্তির সৌশল নেটওয়ার্ক - টেকটিউনস এ আমি 2 বছর 3 মাস যাবৎ যুক্ত আছি। টেকটিউনস আমি এ পর্যন্ত 43 টি টিউন ও 15 টি টিউমেন্ট করেছি। টেকটিউনসে আমার 24 ফলোয়ার আছে এবং আমি টেকটিউনসে 2 টিউনারকে ফলো করি।


টিউনস


আরও টিউনস


টিউনারের আরও টিউনস


টিউমেন্টস

ভাই সত্যি অসাধারন……………..

কোন ডাউনলোড লিংক/যেকোনো লিংক কাজ না করেলে অনুগ্রহ করে নির্দিষ্ট করে টিউমেন্টে আমাকে জানাবেন, আমি লিংক আপডেট করে দিবো ইনশাল্লাহ