কি থাকছে মেট ৪০ সিরিজে?

টিউন বিভাগ রিভিউ
প্রকাশিত

এবছরই বাজারে আসতে পারে হুয়াওয়ে মেট ৪০(Huawei mate 40)। হঠাৎ এই খবরটি হুয়াওয়ে মোবাইল ইউকের(UK) টুইটার অ্যাকাউন্ট থেকে আসে। এই মাত্র কয়েক দিন আগে টিপসটারা দাবি করেছিল বাজারে আসছে না হুয়াওয়ের নতুন ফ্ল্যাগশিপ মেট ৪০। কবে Mate 40 রিলিজ হতে পারে?

হুয়াওয়ে তাদের মেট ৩০ সিরিজটি ২০১২ সালের 'সেপ্টেম্বর' মাসে ঘোষণা করেছিল, যখন ২০১৮ সালের 'অক্টোবরে' বাজারে আনে মেট ২০। এই কারণে, যদি আমরা মেট ৪০ রিলিজ তারিখের জন্য অনুমান করি, তবে সম্ভাব্য মাসটি হতে পারে সেপ্টেম্বর বা অক্টোবর ২০২০।

এরই ধারাবাহিকতায় Leakster Roland Quandt এক রিপোর্ট বলেন হুয়াওয়ে ফোনাটি অক্টোবরের মাঝামাঝি রিলিজ করতে পারে, একটি লাইভ স্ট্রীমে প্রোগ্রামের মাধ্যামে। চলমান চীন -আমেরিকা বাণিজ্য নিষেধাজ্ঞা সত্বেও হুয়াহুয়ে তাদের ফ্ল্যাগশিপ ফোনটি ইউরোপের বাজারে চালানোর প্রচেষ্টা চালিয়ে যাবে। ডিজাইন

মেট ৪০ এর সম্ভাব্য ডিজাইন(সংগ্রহীত)।

বরারবের মতই হুয়াওয়ে তাদের ক্যামেরা সেকশনের দিকে নজর দিয়েছে। মেট ৪০ ব্যাক ক্যামেরা সেকশন অালেজড ডিজাইন ব্যবহার করা হয়েছে।

পূর্বের সকল মেট সিরিজ গুলোতে সেলফি ক্যামেরা সেকশনে "নচ" স্ক্রিন ব্যাহার করলেও মেট ৪০ ফ্ল্যাগশিপে ব্যবহার করা হতে পারে " পিল স্ট্যাইল" কাটআউট সেলফি ক্যামেরা সেকশন।

ইন্টারনেটে পাওয়া তথ্য বলছে, হুয়াওয়ে মেট 40 এ ব্যাববহার করা হবে 6.7-ইঞ্চির ডিসপ্লে। এটি মেট 30 প্রো 6.53-ইঞ্চি ডিসপ্লে থেকে কিছুটা বড়।

পিছনের দিকে, মেট 40 প্রো একটি বৃত্তাকার ক্যামেরা অ্যারে থাকতে পারে, যা ফোনের প্রকৃত শরীর(body) থেকে এক মিলিমিটারের ও বেশি দুরত্বে বসানো হয়েছে।

ফোনটিতে থাকতে পারে ৪টি ভিন্ন ভিন্ন সেন্সর, যেগুলো মেট 30 তে ব্যবহার করা হয়েছিল। টিপ্সটার আরো দাবি করে মেট 40 প্রো'র পুরুত্ব মেট ৩০ পো'র থেকে থেকে অনেকটা কম হবে।

প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে ফোনটিতে আরো থাকতে পারে একটি আইআর(IR) ব্ল্যাস্টার, একক স্পিকার গ্রিল, এবং ফোনের পাশে থাকছে ফিজিকাল ভলিউম ও পাওয়ার বাটন। চিপসেট

হুয়াওয়ে সূত্র জানায়, মেট ৪০ এ ব্যবাহার করা হবে নতুন ৫ নানোমিটার (5 nm) কিরিন(9000Kirin 9000) প্রসেসর, এর পাশিপাশি থাকছে একটি একক ইন্টিগ্রেটেড 5 জি মডেম, কয়েকদিন পূর্বে অ্যাপল তাদের প্রথম 5nm চিপটি উন্মুক্ত করে দেয়, যার ডিজাইন একটি অতিরিক্ত মডেমের উপর নির্ভর করে।

উল্লেখ্য, কিছু লিক দাবি করে যে, কিরিন 9000 ব্যবহার করা হবে মেট 40 প্রো (Mate 40 pro) এবং মেট ৪০ প্রো + (Mate 40 pro+) এ। যদিও ভ্যানিলা মেট 40(vanilla Mate 40) এ ব্যবাহার করা হতে পারে ডাউন চিপ জন্য kirin 9000। কেমন দাম হতে পারে Mate 40 pro এর?

দাম নিয়ে একেবারে কোন ধারনা দিতে পারছেন না লিকার'রা তবে তারা একটি রাফ রুল(rough Rule) ব্যবহার করে দামের ব্যাপরে একটি ধারণা দিয়েছেন।

মেট ৩০ প্রো (Mate 30 pro) এর ভিত্তি মূল্য ছিল €1, 099/(~$1, 296), আর তার পূর্বের ফ্ল্যাগশিপ মেট ২০ প্রো (Mate 20 pro) এর ভিত্তি মূল্য থেকে €50 ইউরো বেশি।

যদি এই প্যাটার্ন মেনে বিশ্ববাজারে মেট ফ্ল্যাগশিপের দাম বৃদ্ধি পায় তাহলে মেট ৪০ প্রো(Mate 40 Pro) এর আনুমানিক ভিত্তি মূল্য হতে পারে €1, 200 এবং €1, 300 এর মধ্যে অথবা তারও বেশি।

আর্টিকেল টি আপনার কাছে যদি তথ্য বহুল মনে হয়, তাহলে এরকম আরো তথ্য বহুল আর্টিকেল পড়তে ঢু মারতে পারেন আমার ব্লগ https://ahtechlab.blogspot.com.

Level 1

আমি আশরাফ আহম্মেদ। বিশ্বের সর্ববৃহৎ বিজ্ঞান ও প্রযুক্তির সৌশল নেটওয়ার্ক - টেকটিউনস এ আমি 5 বছর 10 মাস যাবৎ যুক্ত আছি। টেকটিউনস আমি এ পর্যন্ত 6 টি টিউন ও 5 টি টিউমেন্ট করেছি। টেকটিউনসে আমার 0 ফলোয়ার আছে এবং আমি টেকটিউনসে 0 টিউনারকে ফলো করি।


টিউনস


আরও টিউনস


টিউনারের আরও টিউনস


টিউমেন্টস