ADs by Techtunes ADs
ADs by Techtunes ADs

SEO শিখুন ক্যারিয়ার গড়ুন [পর্ব-০৭] :: এস ই ও নিয়ে কিছু সিকরেট টিপস্

টিউন বিভাগ এসইও
প্রকাশিত

SEO শিখুন ক্যারিয়ার গড়ুন

আজকের এই ৭ম পর্বে গত ছয়টি পর্ব নিয়ে সংক্ষেপে আলোচনা করতে যাচ্ছি। প্রথমে বলে নিচ্ছি

ADs by Techtunes ADs

এস ই ও কি?

SEO: Search Engine Optimization. অর্থাত- এস ই ও হলো সার্চ ইঞ্জিনের সাথে কোন একটি সম্পর্ক। আরো একটু বলি এস ই হলো কোন ওয়েব সাইট বা প্রডাক্টে ভিজিটর নিয়ে আসার কৌশল বা মার্কেটিং।

এবার বলি  সার্চ ইঞ্জিন কি?

সার্চ ইঞ্জিন হল একটি শক্তিশালি ডাটাবেজ যেখানে অগনিত তথ্য সংরক্ষিত থাকে এবং যা ভিজিটরদের চাহিদা অনুযায়ী প্রদর্শন করে থাকে।

আপনি চাইলে আপনার তথ্যও সেই ডাটাবেজে সংরক্ষন করতে পারেন ও ভিজিটরদের চাহিদা মত প্রদর্শন করাতে পারেন।

সার্চ ইঞ্জিনের কিছু উদাহরন হলো- Google, Yahoo, Bing, Baidu, Aol,MSN, Ask, Excite etc.

একটা উদাহরন দিচ্ছি, ধরুন আপনার বন্ধুর একটা নামিদামি পোশাকের সরুম আছে যেখানে প্রতিদিন হাজার হাজার কাষ্টমার আসে কেনার জন্য। এখন ধরেন আপনার কাছে কিছু টি-শার্ট আছে। আপনি আপনার বন্ধুকে গিয়ে বললেন আপনার টি-শার্ট গুলো যেন তার সরুমে ডিসপ্লে করে দেয় তাহলে কাষ্টমার আসলে সেগুলা সহজেই সেল হয়ে যাবে। এই সরুমটাই হলো এস ই ওর জন্য Search Engine আর টি-শার্ট হলো আপনার পন্য বা ওয়েব সাইটের আর্টিকেল।

এবার মূল কথায় আসি। আপনি আপনার বন্ধুকে রিকুয়েষ্ট করে তার দোকানে টি-শার্ট রাখলেন। এবার যখন কাষ্টমার আসবে তখন তারা আপনার টি-শার্ট গুলো দেখতে পাবে। কিনতে গিয়ে যদি দেখে আপনার সেই টি-শার্ট এর সেলাই ঠিক ভাবে করা না কিংবা টি-শার্ট এ যে প্রিন্ট করা আছে সেটার কোয়ালিটি ভালো না তাহলে কাষ্টমার বিরক্ত হবে নিশ্চিত। অনেক সময় সরুম ম্যানেজারকে অভিযোগও করতে পারে। যদি অভিযোগ করে তাহলে আপনার বন্ধু কিন্তু আর কখনোই আপনার টি-শার্ট তার নামিদামি সরুমে প্রদর্শন করাতে চাইবে না। কারন তার সুনাম নষ্ট হবে। অন্য দিকে কাষ্টমার যদি অন্য কোন সরুমে আপনার টি-শার্ট আবারো দেখতে পায় তাহলে পূর্বের নেগেটিভ ধারনা থেকে সেই কাষ্টমার আর আপনার টি-শার্ট নাও কিনতে বা দেখতে পারে। তখন আপনি যতই কোয়ালিটি মেইনটেইন করেন না কেন কাষ্টমার তাকে খারাপ হিসেবেই দেখবে।

আসল কথা:

আপনি যদি আপনার ওয়েব সাইটের আর্টিকেল গুগলে সাবমিট করেন আর তার কোয়ালিটি যদি খারাপ হয় বা কপি পেষ্ট হয় তাহলে সার্চ ইঞ্জিন কিন্তু আপনার সাইটকে প্লান্টি দিতে পারে।অন্যদিকে আপনার ওয়েব সাইটে যদি দুই তিনটা আর্টিকেল লিখেই এস ই ও করা শুরু করেন আর ভিজিটর এসে যদি একবার দেখে আপনার সাইটে তেমন কোন তথ্য নেই তাহলে পরের বার সেই ভিজিটর আর আপনার সাইটে নাও আসতে পারে আপনি যতই ভালো মানের আর্টিকেল লেখেন না কেন।

সুতরাং- সার্চ ইঞ্জিনে অবশ্যই মানসম্মত আর্টিকেল সাবমিট করতে হবে। আর এস ই ও করার আগে আপনার সাইটে অবশ্যই তথ্য দিয়ে পূর্ণ থাকতে হবে।

অনপেজ এস ই ও হলো আপনার সাইটের বা আর্টিকেলের গুনগত মান নিশ্চিত করে সার্চ ইঞ্জিনে সাবমিট করা।

ADs by Techtunes ADs

অফপেজ এস ই ও হলো সেই সাইটকে ভিজিটরের সাথে পরিচয় করিয়ে দেয়া।

আবার ধরেন আপনার দামি টি-শার্ট আপনি গ্রামে গিয়ে সেল করার চেষ্টা করছেন কিংবা মোবাইলের দোকানে গিয়ে ডিসপ্লে করাচ্ছেন। তাহলে আপনি কি আশা করবেন আপনার সেই টি-শার্ট সেল হবে? অবশ্যই না। কারন গ্রামের মানুষগুলা দামি নয় বরং একটু সস্তা খুজবে আর মোবাইলের সরুমে কিন্তু মানুষ টি-শার্ট কিনতে যায় না। এই বিষয়গুলা মাথায় রেখেই আপনাকে আপনার পন্যের মার্কেটিং করতে হবে। আপনার টি-শার্ট এর চাহিদা যেখানে আছে আপনি শুধু সেখাই সেটার মার্কেটিং করবেন। অন্যথায় আপনার সকল পরিশ্রমই বিফলে যাবে।

উপরের কথার মানে হলো-

আপনি আপনার সাইটের ব্যাকলিংক এমন যায়গায় করবেন যেখান থেকে একটি হলেও ভিজিটর পাওয়ার সম্ভাবনা থাকবে। অর্থাত, ভালো মানার সাইটে বা আপনার টপিক রিলেটেড সাইটে গিয়ে আপনাকে ব্যকলিংক করতে হবে। তা না হলে আপনি সারামাস এস ই ও করেও কোন ফল পাবেন না।

এবার ধরেন, আমাকে বাংলাদেশের কেউ চেনে না, এখন যদি দেশের রাস্ট্রপতি বা প্রধানমন্ত্রি এসে বলে জোবায়ের ছেলেটা ভালো তাহলে দেশের মানুষ কিন্তু অন্ধ ভাবেই বিশ্বাস করতে শুরু করবে হয়তো জোবায়ের সত্যিই ভালো না হলে এমন ব্যক্তিরা তার প্রসংসা করবে কেন।

ব্যাকলিংক হলো আপনার আর্টিকেলের জন্য প্রশংসা সংগ্রহ করা যাতে গুগল সহজেই বিশ্বাস করে যে আপনার আর্টিকেল মানসম্মত। তাই ব্যকলিংক অবশ্যই পপুলার সাইটে করতে হবে। হাজার হাজার ব্যকলিংকের চেয়ে একটি মানসম্মত ব্যকলিংক অনেক উপকারি। যেখানে আপনার সাইট দ্রুত র‌্যাংক করবে।

কি করে আপনারা ব্যকলিংক করবেন কি করে মানসম্মত সাইটগুলা খুজে পাবেন আমি প্রতিটা বিষয়ই প্রাকটিক্যাল দেখাতে চেষ্টা করব। আজকের মত এই পর্যন্তই সবাই ভালো থাকবেন সুস্থ থাকবেন আল্লাহ হাফেজ।

টিউটোরিয়াল লিংক পর্ব ০৭: Click>> SEO Bangla Video Tutorial Full Review A-Z Episode No 07

ফেসবুকে আমি: জোবায়ের রহমান

আমার ফেসবুক গ্রুপ: Online School BD

ADs by Techtunes ADs

ADs by Techtunes ADs
Level 1

আমি জোবায়ের রহমান। Founder, Jobayer Academy, Dhaka। বিশ্বের সর্ববৃহৎ বিজ্ঞান ও প্রযুক্তির সৌশল নেটওয়ার্ক - টেকটিউনস এ আমি 5 বছর 12 মাস যাবৎ যুক্ত আছি। টেকটিউনস আমি এ পর্যন্ত 45 টি টিউন ও 28 টি টিউমেন্ট করেছি। টেকটিউনসে আমার 3 ফলোয়ার আছে এবং আমি টেকটিউনসে 0 টিউনারকে ফলো করি।


টিউনস


আরও টিউনস


টিউনারের আরও টিউনস


টিউমেন্টস

প্রিয় টিউনার,

আপনি ভুল ভাবে আপনার চেইন টিউনের শিরোনাম গুলো দিচ্ছেন। আপনি পর্ব হিসেবে টিউনের শিরোনাম গুলো –

চেইন টিউনের নাম [পর্ব-০১] :: চেইন টিউনের ভিতরের বিষয়বস্তু …

চেইন টিউনের নাম [পর্ব-০২] :: চেইন টিউনের ভিতরের বিষয়বস্তু ….

চেইন টিউনের নাম [পর্ব-০৩] :: চেইন টিউনের ভিতরের বিষয়বস্তু

এর অর্থ প্রথমে চেইন টিউনের নাম, এরপর (স্পেস দিয়ে) স্কয়ার ব্রাকেটের ( [ ] ) মধ্যে পর্ব হাইফেন (-) দিয়ে দুই সংখ্যায় পর্বের নম্বর। স্কয়ার ব্রাকেটের ( [ ] ) ভিতরে কোন স্পেস দিবেন না। এরপর (স্পেস দিয়ে) ডাবল কোলন (::) এর পরে (স্পেস দিয়ে) চেইন টিউনের ভিতরের বিষয়বস্তু॥ এই ফরমেটে চেইন টিউনের শিরোনাম গুলো লিখুন।

এই চেইনের পূর্বের পর্ব গুলোর শিরোনাম গুলোও যদি ‘টেকটিউনস চেইন টিউনের’ শিরোনাম মোতাবেক করা না থাকে তবে সব গুলো এখনই সংশোধন করুন ও পরবর্তী সকল চেইন টিউনে সঠিক ভাবে চেইন টিউনের শিরোনাম দিন।

টিউনের শিরোনাম গুলো ‘টেকটিউনস চেইন টিউনের’ শিরোনাম মোতাবেক সঠিক ভাবে সংশোধন করে আপডেট করে এই টিউমেন্টটির প্রতুত্তর (রিপ্লাই) দিন। টেকটিউনস থেকে আপনার টিউন গুলো চেইন করে দেওয়া হবে।

চেইন টিউন কীভাবে প্রক্রিয়া হয় তা জানতে ‘টেকটিউনস সজিপ্র’ https://www.techtunes.co/faq এর ‘চেইন টিউন’ অংশ দেখুন। ধন্যবাদ।

tHANKS..GO AHEAD…

আমার সাইট টি কেন গুগল এ আসেনা। সাইট সাবমিট করেছি, অনেক ভাবে seo করেছি কিন্তু তার পরেও গুগল এ আসে না। প্রথম কোন কিছুই করি নি তবুও সার্চ রেজাল্টে প্রথম পেজেই ছিল। আর এখন গুগল পাইনা কেন। সাইট http://www.richwab.com

ধন্যবাদ ভাইয়া
অনেক ভালো লিখেছেন। আপনার অনেকগুলো পোস্ট খুব মনোযোগ সহকারে পড়েছি। পড়ে ভালো লেগেছে….

আমাদের ব্লগে এসইও সংক্রান্ত বিষয়ে অনেকগুলো পোস্ট রয়েছে। আশাকরি সকলের কাজে আসবে।