ADs by Techtunes ADs
ADs by Techtunes ADs

গুগল পাণ্ডা বধ ও এর সকল সমস্যা সমাধান একসাথে। পাণ্ডাকে নিয়ে মাথা ঠাণ্ডা রাখেন :)

 

ADs by Techtunes ADs

সবাই কেমন আছেন? আশা করছি ভালো আছেন সবাই। আজ আবার ও গুগল পাণ্ডা নিয়ে লিখতে বসলাম, আজ আমি আপনাদেরকে বলবো কিভাবে এই  পাণ্ডার হাত থেকে আপনার ওয়েব সাইট কে রক্ষা করবেন, কি কি বিষয় বা কৌশল এখন ও কাজ করছে ইত্যাদি। তো চলুন শুরু করা যাক

গত টিউনে আমি গুগল পাণ্ডা কি , এর ভার্সন বা আপডেট সম্পর্কে বলেছেলাম। যারা মিস করেছেন তারা দেখে নিতে পারে।

যেসকল কারণে আপনার ওয়েব সাইট পাণ্ডার কিক খেতে পারে

আশা করি কেউই চাইবেন না পাণ্ডার কিক খেয়ে রেংক হারাতে। গুগল পাণ্ডা আপনাকে তখনই কিক মারার জন্য প্রস্তুতি নিবে যখন নিচের বিষয় গুলো আপনার ওয়েবসাইট এ থাকবে, তো দেখে নিই কি কি বিষয় আপনার ওয়েবসাইটকে দুর্বল করে দিতে পারে।

১. খুবই অল্প পরিমাণের অরজিনিয়াল কন্টেন্ট থাকলে,

২. নিম্নমানের ও খুব কম ইনবন্ড লিংক আপনার সাইট এ থাকলে

৩. বাউন্স রেট বেশি হলে বা ভিজিটরা কম সময় সাইট  ভিজিট করলে

৪. সর্বচ্চো পরিমানের % কপি- পেস্ট কন্টেন্ট থাকলে,

৫.  অনেক পেজ ওয়েবসাইট এ কিন্তু কাজের পোস্ট একটাও নাই , মানে সব ই আপনার ওয়েবসাইটের বিষয়ের সাথে মিল নেই।

৬. আজে বাজে শব্দ দ্বারা পূর্ণ ওয়েব সাইট

ADs by Techtunes ADs

৭. অধিক মাত্রায় অবাঞ্ছনীয় ব্যাক লিংক থাকলে।

 যেভাবে গুগল পাণ্ডাকে বধ করবেন।

গত টিউনে আসিফ ভাইয়া একটা কমেন্ট করেছিলে। সেখানে আসিফ  ভাইয়া বলেছেন “পান্ডা আসলে, সার্চ কোয়ালিটি আপডেট” আমি ও উনার কথার সাথে মিল রেখে বলতে চাই যদি আপনি গুগল পাণ্ডা কে বধ করতে চান তাহলে অবশ্যই আপনার সাইটকে এমন ভাবে আপডেট করতে হবে যাতে করে সেটি এই সার্চ কোয়ালিটির আপডেটের মধেই থাকে। তো গুগল পাণ্ডাকে টপকে উপরের দিকে যেতে হলে আপনাকে যা যা করতে হবে তার মধ্যে রয়েছে।

 ১. স্প্যামিং ব্যাক লিংক  থেকে সাবধানঃ

একটা সময় ছিল যখন কোন সাইটকে ১ম এ নিয়ে আসতে গেলে, সবাই কন্টেন্ট এর চেয়ে বেশি গুরুত্ব দিত লিংক বিল্ডিং এ। তা অবশ্য অনেক কাজেও আসতো। তাইতো সব্বাই মিলে যেভাবেই পারত নিজের ওয়েব সাইট কে প্রথমে নিয়ে আসার জন্য ফোরাম প্রোফাইল লিংকিং, স্প্যামিং ব্লগ কমেন্টিং , একই এঙ্কর টেক্স বার বার ব্যবহার করা ইত্যাদি কাজ করত। যার মধ্যে ৭০% ই থাকতো স্পামিং, অর্থাৎ আপনার ওয়েব সাইটের বিষয়ের সাথে আপনার ব্যাক লিংক করা ওয়েব সাইটের কোন মিল ই থাকতো না।কিন্তু গুগল পাণ্ডা আপডেট আসার পর এই কৌশল দিন দিন পড়তে শুরু করেছে। তাই ব্যাক লিংক করুন কোয়ালিটির জন্য কোয়ানটিটি (পরিমাণ) এর জন্য নয়।

 ২. কন্টেন্ট লিখতে সাবধানঃ

সব্বাই বলে “Content Is King” , কিন্তু এখন গুগল পাণ্ডার কাছে “unique Content Is a King” । তাই যেভাবেই হয় একদম ইউনিক কন্টেন্ট লিখুন, পাকনামো করে আবার “Article Spinning “  করতে গেলে হিতে বিপরীত হয়ে যাবে। কারন গুগল এখন স্পিনিং কন্টেন্ট ও ধরে ফেলতে পারে। কন্টেন্ট লেখার সময় অবশ্যই অন-পেজ অপটিমাইজেশন এর দিকে খেয়াল রাখতে হবে। না হলে আপনার কাঙ্ক্ষিত ফলাফল নাও পেতে পারে।

যতটা সম্ভব কনটেন্টকে আপনার ওয়েব সাইটের সাথে মিল রাখার চেষ্টা করেন। এক পোস্ট যেন বার বার না আসে সেই দিকেও খেয়াল রাখতে হবে।

আর কপি পেস্ট.....................। ডু-ল্যান্সার এর মত ১০০ হাত দূরে থাকুন 😀

৩. সাইট ডিজাইনে হন আরও সতর্কঃ

আমরা অনেকই সাইট ডিজাইনের সময় কিছু কিছু বিষয় গুলো ভুলে যায়, যেমন আপনি যে থিম বা টেম্পলেট ব্যাবহার করছেন অদ্য ও কি সেটা এসইও ফ্রেন্ডলি? ন্যাভিগেশন বার কেমন আপনার ওয়েবসাইট এ? এমন কিছু কি আছে যা আপনার ওয়েব সাইটকে সুন্দর করার জন্য করেছেন, যার জন্য গুগল বট আপনাকে হাজার চেষ্টা করেও ইনডেক্স করতে পারে নাই?

যদি এসব আপনি না ভেবেই সাইট এ হাজার হাজার কন্টেন্ট, ব্যাক লিংক করেন তাহলে কোন লাভ ই হবে না, তাই সাইট ডিজাইনের অবশ্যই সতর্ক হতে হবে, যেমন

১. যে  থিম বা টেম্পলেট ব্যাবহার করছেন সেটাতে কি কি ধরনের কোড ব্যাবহার হয়েছে,

২. সাইট সুন্দর করার জন্য CSS কে ভালভাবে ব্যাবহার করুন।

ADs by Techtunes ADs

৩. H1, H2 <b>, ul, il এদেরকে চেষ্টা করবেন সবসময় ক্লিন রাখার জন্য, যেমন <h2> This is Headline </h2> এটির  কার্যকারিতা <h2 class=”css”> This is Headline</h2> এর চেয়ে বেশি।

৪. আমার মতে ভালো থিমের স্ট্রাকচার হল

  • META
  • Body
  • Navigation
  • Main Article Body
  • Sidebar
  • Others
  • Footer

যেমনঃ

<html>

<-- Start Meta 1st in Head -!>

<head>

<-- All of your meta content and CSS Java etc -!>

<meta content >

</head>

<body>

<nav>

ADs by Techtunes ADs

Menu1 | Menu1 | Menu1 | Menu1 |

</nav>

<-- Start your article body form here -!>

<div id=”content”>

You need to put your article here

</div>

<-- Start your Sidebar or others HTML after the content sector -!>

<div id=”Siderbar”>

Here will be sidebar code

</div>

ADs by Techtunes ADs

<-- Start Footer Sector HTML Code -!>

<div id=”footer”>

Here will be Footer or Copyright Content

</div>

</body>

</html>

৪. BoilerPlate or Template কন্টেন্ট এড়িয়ে চলুনঃ

টেম্পলেট কন্টেন্ট হল আপনার একই টেক্স আপানার ওয়েব সাইটের অনেক গুলো পেজে থাকা, যারা ওয়ার্ডপ্রেস ব্যবহার করেন তারা বিষয়টা ভালো বুঝতে পারবেন, আপনি যখন একটা পোস্ট লিখেন, তখন সেটির কিছু অংশ ( ডেসক্রিপশন ) থাকে হোম পেজ এ। একই টেক্সট থাকে ক্যাটাগরিতে, ট্যাগ এ আর্কাইভ এ। তখন কিন্তু সেটি ডুপ্লিকেট কন্টেন্ট এর আওতায় পড়তে পারে। তাই যারা ওয়ার্ডপ্রেস ব্যবহার করেন তাদের জন্য উচিত ক্যাটাগরি, ট্যাগ, আর্কাইভ ইত্যাদি গুলোকে “NO Index” করে রাখা, যেটি আপনি “All in One SEO pack” প্লাগিন্স দিয়েই করতে পারেন।

৫. একই এঙ্কর টেক্সট বার বার ব্যবহার বাদ দিনঃ

সেই দিন শেষ হয়ে গেছে যখন ওয়েব মাষ্টাররা লিংক বিল্ডিং করার সময় একই এঙ্কর টেক্সট বার বার ব্যবহার করত।  এতে অনেক ভালো কাজও হত। কিন্তু এখন “গুগল পাণ্ডা” একই এঙ্কর টেক্সট বার বার দেখলে সেটিকে স্পামিং লিংক বিল্ডিং হিসাবে চিহিত করে। তাই আপনি সব সময় লিংক বিল্ডিং করার সময় অবশ্যই মাথায় রাখবেন যাতে করে গুগল পাণ্ডা বুঝতে না পারে আপনি নিজেই সব লিংকিং করেছেন। যতটা সম্ভব ন্যাচারাল থাকা যায়।

আর স্পিনিং আর্টিকেল এ ব্যাক লিংক করবেন না। ছোট হোক কিন্তু নিজের লেখা এমন কিছু আর্টিকেল লিখে লিংক বিল্ডিং করতে থাকেন।

৬. অন-পেজ এসইও করুন সঠিক ভাবেঃ

এখন বলা চলে যার অন-পেজ এসইও সবচেয়ে ভালো সে অল্প কিছু অফ পেজ এসইও করলেই তার সাইটটি রেংক আপ করারনো যায়। তাই আপনি অন পেজ এ এমন কিছু বাদ দিবেন না যার জন্য আপনি আপনার রেংক হারাতে পারেন। যেমনঃ

ADs by Techtunes ADs

১. বার বার একই কী-ওয়ার্ড ব্যাবহার করা  থেকে বিরত থাকুন।

২. কী-ওয়ার্ড ডেনসিটি ১%-৩% এর ভিতরে রাখুন।

৩. Title ট্যাগ এ এমন ভাবে সাজান যাতে করে একটি টাইটেল এই সব কী-ওয়ার্ড থাকে, যেমন আপনার কী-ওয়ার্ড যদি হয় Bangladesh newspaper, Bangladesh newspapers, Bangladesh newspapers online তাহলে আপনি সাজাতে পারেন এভাবে।

Bangladesh Newspapers Online website Link or List.

৪. চেষ্টা করুন কী-ওয়ার্ড টাইটেল এর প্রথমেই রাখতে/

৫. H1-H6 ট্যাগ গুলোতে বার বার কী-ওয়ার্ড ব্যবহার করবেন না

৬. সাইট ম্যাপ অবশ্যই ব্যবহার করুন

৭. দয়া করে পুরানো ব্ল্যাক হ্যাট এসইও কইরেন না, কারন সবই এখন গুগল পাণ্ডা মামার মুখস্ত 😀

এইত গেল সব প্রধান প্রধান বিষয় গুলো যে কিভাবে আপনার সাইটকে রক্ষা করবেন ‘গুগল পাণ্ডা’ আপডেট থেকে। সব কথার শেষ কথা হল আপনি যতটা সম্ভব ন্যাচারাল এসইও করতে থাকেন। গুগল পাণ্ডাকে বুঝতে দিয়েন না যে আপনি বেশি এসইও করছেন। আজ এ পর্যন্তই , আশা করি নতুন কিছু আপনাদেরকে উপহার দিতে পেরেছি। ধন্যবাদ সবাইকে। তবে যাওয়ায় আগে একটা ছোট কথা বলে যাই সেটা হল “গুগল কিন্তু ১০০% সত্যি কথা বলে না” 😛

আগামী পর্বে থাকছে “ কি করা উচিত  যদি আপনার ওয়েব সাইট পাণ্ডা হিট করে ?? “

ADs by Techtunes ADs

ADs by Techtunes ADs
Level 0

আমি সজীব রহমান। বিশ্বের সর্ববৃহৎ বিজ্ঞান ও প্রযুক্তির সৌশল নেটওয়ার্ক - টেকটিউনস এ আমি 10 বছর 10 মাস যাবৎ যুক্ত আছি। টেকটিউনস আমি এ পর্যন্ত 70 টি টিউন ও 820 টি টিউমেন্ট করেছি। টেকটিউনসে আমার 3 ফলোয়ার আছে এবং আমি টেকটিউনসে 0 টিউনারকে ফলো করি।


টিউনস


আরও টিউনস


টিউনারের আরও টিউনস


টিউমেন্টস

ভাল লাগলো।

ধন্যবাদ সজীব ভাই । পান্ডা পিটায়ে তোমারে করব ঠান্ডা ।

Level 0

অনেক সুন্দর টিউন করেছেন। অনেক কিছু জানতে পারলাম। আমিও মনে করি অফ পেজ অপটিমাইজেসনের চেয়ে অন পেজ ভালভাবে অপটিমাইজ করা অনেক গুরুত্বপূর্ণ। তবে, ভাইয়া আমি প্র্যাকটিকালি কখনও seo নিয়ে কাজ করিনি। টেকটিউনস বা বিভিন্ন ব্লগে seo নিয়ে করা বেশ কিছু টিউন পড়েছি। এজন্য শুধু একটু ধারনা আছে seo সম্পর্কে। তাই, আপনার টিউনের কিছু বিষয় বুঝতে পারছি না। অনুগ্রহ করে একটু ক্লিয়ার করবেন?
১) Article Spinning কি জিনিস?
২) কী-ওয়ার্ড ডেনসিটি ১%-৩% বলতে আসলে কি বুঝিয়েছেন?
৩) আপনি বলেছেনঃ ” Title ট্যাগ এ এমন ভাবে সাজান যাতে করে একটি টাইটেল এই সব কী-ওয়ার্ড থাকে, যেমন আপনার কী-ওয়ার্ড যদি হয় Bangladesh newspaper, Bangladesh newspapers, Bangladesh newspapers online তাহলে আপনি সাজাতে পারেন এভাবে”
আমার স্বল্প জ্ঞানে আমি যতটুকু জানি তা হল, ব্লগের ১ টি পোস্টের জন্য meta tag লিখতে হয় ৩ টি। কিন্তু, স্ট্যাটিক ১ টা পেজে meta tag অনেক হতে পারে(যদিও সঠিক কতটি হলে ভাল হয়, তা আমি জানিনা)। সেক্ষেত্রে অনেক meta tag হলে সব বেশিরভাগ কী-ওয়ার্ড কীভাবে টাইটেলে রাখব?
৪) ১ টা ওয়েবসাইট যদি ডাইনামিকভবে করা হয় কিন্তু সেখানে কোন ব্লগপেজ রাখা না হলে সেই ওয়েবপেজগুলোর জন্য meta tag কি ব্লগের পোস্টের নিয়মে ৩ টি-ই লিখতে হবে নাকি স্ট্যাটিক পেজের মত অনেকগুলো লিখতে হবে।?

seo নিয়ে আসলে একটু ঝাপসা ধারনা রয়ে গেছে আমার। তাই এত কিছু জিজ্ঞেস করে ফেললাম। মাইন্ড কইরেন না। আর প্রশ্নের মধ্যেও কোন ভুল থাকলে ক্ষমাসুলভ দৃষ্টিতে দেইখেন।

    @dolar: ধন্যবাদ আপনাকে প্রশ্ন গুলো করার জন্য,আমি নিচে এই প্রশ্ন গুলোর উত্তর দেয়ার চেস্টা করছি

    ১. Article Spinning হলো সরাসরি কপি পেস্ট না করে একটি লেখাকে পালটে ফেলা। এই কাজ করার জন্য একটি লেখার বিসয় বস্তু ঠিক রেখে শুধুমাত্র এর মধ্যকার শব্দ (Word) কে/ ওই শব্দের ভিন্নরুপ (synonyms) ব্যবহার করা হয়। একটা উদাহারন দেই “A silent migraine or acephalgic is a type of headache where {no pain persists|there is no persistent pain|pain does not persist}. It is a medical oddity but is not that {unusual|uncommon|hard to find}. This type of migraine is only reported by 15% of {migraine patients|people suffering from migraines|migraine sufferers} and is still an area of {concern|worry}. These {usually occur|often occur|are most often seen} with older patient and are reported more by men than women.”
    এখানে {} যে শব্দ গুল আছে সেগুল হলো একটি শব্দের একাধিক প্রতিশব্দ। এগুলকে ম্যানুয়ালী বা সফট এর মধ্যমে অটোমেটিকলী পালটানো হয়ে থাকে।

    ২. কী-ওয়ার্ড ডেনসিটি ১%-৩% বলতে বুঝিয়েছি যে আপনি যে কন্টেন্ট টি লিখেছেন সেটার প্রতি ১০০টি ওয়ার্ড এর মধ্যে আপনার কী-ওয়ার্ডটি সরবোচ্চ ১-৩ বার ব্যবহার করতে পারবেন

    ৩.” ব্লগের ১ টি পোস্টের জন্য meta tag লিখতে হয় ৩ টি। কিন্তু, স্ট্যাটিক ১ টা পেজে meta tag অনেক হতে পারে(যদিও সঠিক কতটি হলে ভাল হয়, তা আমি জানিনা)। ” আপনার এই কথাটি আমি ভালোভাবে বুঝতে পারিনি। যদি আপনার কী-ওয়ার্ড বেশি হয় তাহলে আপনি আপনার প্রধান কী-ওয়ার্ড গুলোকেই বেশি প্রাধান্য দিতে পারেন টাইটেল ট্যাগ এ, বাকি গুলো ব্যবহার করুন মেটা ডেস্ক্রিপশন ও মেটা কী-ওয়ার্ড এ।

      Level 0

      @সজীব রহমান: অনেক ধন্যবাদ আপনাকে প্রশ্নগুলোর উত্তর দেয়ার জন্য।

Level 0

সজীব ভাই আপনাকে অনেক অনেক ধন্যবাদ ।আপনার SEO নিয়ে লেখা পোস্টগুলো সত্যি Awesome ।আশা করছি আরো ভালো ভালো পোস্ট পাবো ।

শুনছি Panda রা নাকি বাঁশ খাইতে পছন্দ করে? 😆 কয়েকটা বাঁশ দিলেই তো পান্ডা ঠান্ডা হওয়ার কথা! দারুণ টিউন 😀

Level 0

Sajib Bhai, Joomla CMS ar jonno ki kono specific guidelines ache? BTW anek kichu sikhlam ai post theke…..Thanks

    @ameet: আমি ভাই আসলে জুমলা তেমন ভালো জানি না তাই বলতে পারছি না। ধন্যবাদ আপনার কমেন্ট এর জন্য।

আপনার টিউন সর্বদাই অনেক সুন্দর ও ভাল মানের হয়,আশা করি আগামীতেও এই দ্বারা বজায় রেখে এগিয়ে যাবেন,আপনার জন্য অনেক শুভকামনা রইল।

Level 0

একজন SEO হিসাবে বলতে চাই খুবই সুন্দর লিখসেন

Josh tune…
Khub sundor hoyese….

You really make a good tune for them who wants to know SEO fully.

Go ahead….

nice post

ভাল টিউনস। আপনি এই সাইটেও(www.eratunes.com) লিখতে পারেন। ধন্যবাদ