ADs by Techtunes ADs
ADs by Techtunes ADs

কি লগার হতে আপনার পাসওর্য়াড কে রক্ষা করুন

কি – লগার (Keylogger) কি?

কি লগার হচ্ছে এমন একটি প্রোগ্রাম যেটি আপনার কম্পিউটারে ইনস্টল করা থাকলে আপনি কি-বোর্ডে কি’ গুলো প্রেস করে কম্পিউটারে যা যা লিখছেন তা সেই প্রোগ্রামটি সংরক্ষন করে রাখবে আপনার অজান্তে। কি লগার হচ্ছে সবচেয়ে নিম্নস্তরের হ্যাকিং । কি লগার ব্যবহারের জন্য বিশেষ জ্ঞানের প্রয়োজন পড়েনা। এটি কারো ইমেইল এ্যাড্রেস বা অন্যান্য এ্যাকাউন্টের ইউজার নেম এবং পাসওয়ার্ড হ্যাক করার সহজ পদ্ধতি ।

ADs by Techtunes ADs

আচ্ছা ধরুন আপনি সাইবার ক্যাফেতে ব্রাউজিং করছেন। আপনি হয়তো জানেনও না যে যেই পিসিতে বসে আপনি ব্রাউজিং করছেন তাতে কেউ পূর্বেই কি-লগার ইনস্টল করে রেখে গেছে। এখন ধরুন আপনি http://mail.yahoo.com এ গেলেন এবং ইউজারনেম এবং পাসওয়ার্ড প্রদান করলেন । তৎক্ষনাত কি লগার টি আপনি যা যা টাইপ করেছিলেন সব রেকর্ড করে ফেলছে । ভয়ংকর তাইনা । এখন আপনি বলতে পারেন ঠিকআছে আমি কি বোর্ড দিয়ে ইউজারনেম পাসওয়ার্ড লিখবো না উইন্ডোজের অনস্ক্রিন কিবোর্ড ব্যবহার করবো।

(Start > All Programs > Accessories > Accessibility > On-Screen Keyboard ) তবে জেনেনিন কি লগারটি সেটিও রেকর্ড করে ফেলবে (আমি পরিক্ষা করে দেখেছি) এছাড়াও প্রায় কি-লগার গুলোতে স্ক্রিনশট ফাংশনালিটি রয়েছে যার মাধ্যমে প্রতি সেকেন্ডে বা নির্দিষ্ট সময় পরপর কি-লগারটি ডেক্সটপের স্ক্রিনশট তুলে রাখে ফলে হ্যাকার এটিও জানতে পারবে আপনি ডেক্সটপে কি কাজ করছিলেন , কোন ওয়েবসাইট ভিজিট করছেন , ইউজারনেম বক্সে কি লেখা আছে , পাসওয়ার্ড এর ঘরে কালো বিন্দু গুলোর সংখ্যা কয়টি ( যা পরবর্তীতে লগ হতে ইউজার নেম ও পাসওয়ার্ড কে আলাদা ভাবে বুঝতে সহায়তা করে)

যা হোক এ বিষয় সম্পর্কে জানার পর আমার মনেও সঙ্কা জাগে যে অন্য কেউ তো কি-লগার ব্যবহার করে আমার ইউজারনেম এবং পাসওয়ার্ড হ্যাক করতে পারে। আমি মরিয়া হয়ে এর সমাধান খোঁজা শুরু করলাম এবং হয়তো কিছুটা সমাধান ও পেয়ে গেছি। সেটি নিয়েই লেখা।

যা যা প্রয়োজন :

ক) একটি পেনড্রাইভ
খ) ফায়ারফক্স পোর্টেবল

ফায়ারফক্স পোর্টেবল হচ্ছে ফায়ারফক্সেরই পোর্টেবল ভার্সন। অর্থাৎ এটি পেনড্রাইভে ইনস্টল করা হলে যে কোন কম্পিউটারে পেনড্রাইভ হতে ফায়ারফক্স চালানো যাবে, ইনস্টল করার প্রয়োজন পড়বে না।

এটি পাওয়া যাবে এখান থেকে : http://portableapps.com/apps/internet/firefox_portable

ফায়ারফক্স পোর্টেবল টি ডাউনলোড করে নিন। ডাউনলোড করার পর প্রোগ্রামটি রান করে ব্রাউজ করে আপনার পেনড্রাইভটি সিলেক্ট করে দিন। তারপর Install বাটনে ক্লিক করুন। ফায়ারফক্স পোর্টেবল আপনার পেনড্রাইভে ইনস্টল হওয়া শুরু করবে। পোর্টেবল ফায়ারফক্স অনুমানিক ২০ মেগাবাইটের মত যায়গা নেবে। বাকি ফ্রি স্পেস ব্যবহার হবে Cache ফাইল সংরক্ষনের জন্য (আপনি ওয়েবসাইট ভিজিট করলে ইমেজ, কুকি , ফ্ল্যাশ ফাইল ইত্যাদি লোকাল ডিস্কে সংরক্ষিত হয় এগুলোই ক্যাশ ফাইল)

আগেই বলে নেই আমরা ফায়ারফক্সের “পাসওয়ার্ড ম্যানেজার” ফিচার টি ব্যবহার করে পাসওয়ার্ড কে কি-লগারের হাত হতে রক্ষা করব। যদিও এটি খুব সহজ বিষয় তবুও যারা এ সম্পর্কে জানেননা তাদের জন্য এই টিউটোরিয়াল।

এখন আপনার পেনড্রাইভ থেকে FirefoxPortable ফোল্ডারে গিয়ে FirefoxPortable.exe রান করুন।ফায়ারফক্স পোর্টেবল এর স্প্ল্যাশ স্ক্রিন দেখাবে এবং ফায়ারফক্স চালু হবে। খেয়াল রাখবেন এই ফায়ারফক্স পেনড্রাইভ থেকে রান হচ্ছে তাই এটি মূল ফায়ারফক্স থেকে কিছূটা স্লো চালু হতে পারে তবে usb 2.0 হলে হয়তো বা পারফরমেন্স ভালো হতে পারে। এখন ধরে নিচ্ছি আপনার কম্পিউটারে ইন্টারনেট সংযোগ আছে এবং আপনার পিসিতে কিলগার নেই আপনি নিশ্চিত । এবার আপনার গুরুত্বপূর্ন ওয়েবসাইট টি ব্রাউজ করুন পোর্টেবল ফায়ারফক্স থেকে। ধরুন আপনি ইয়াহু মেইল বা জিমেইলে লগইন করবেন। এখন ইউজারনেম এবং পাসওয়ার্ড বক্সে আপনার ইউজারনেম এবং পাসওয়ার্ড টাইপ করুন। এবার সাইন ইন বা লগইন বাটনে ক্লিক করলে একটি পপআপ ম্যাসেজ আসবে যে আপনার ইউজার নেম এবং পাসওয়ার্ড ফায়ারফক্সের পাসওয়ার্ড ম্যানেজারে সেভ হবে কিনা।

ADs by Techtunes ADs

pic1.jpg

চিত্রঃ – ১

এখান থেকে “Remember” বাটনে ক্লিক করুন তাহলে পাসওয়ার্ড ম্যানেজারে তা সংরক্ষিত হবে। সংরক্ষিত হয়েছে কিনা তা আপনি দেখতে পারেন
Tools > Options > থেকে Security ট্যাবে গিয়ে

pic2.jpg

চিত্রঃ – ২

Show Passwords.. এ ক্লিক করুন। তাহলে পাসওয়ার্ড ম্যানেজার দেখতে পাবেন

pic3.jpg

চিত্রঃ – ৩

এখানে সাইট কলামে সাইটের এ্যাড্রেসটি , ইউজারনেম কলামে সেই সাইটে ব্যবহৃত ইউজার নেমটি এবং পাসওয়ার্ড কলামে পাসওয়ার্ড টি দেখতে পাবেন।

এখন থেকে যখন ই আপনি উক্ত সাইট টি ভিজিট করবেন সেই পেজের ইউজারনেম এবং পাসওয়ার্ড বক্সে অটোমেটিক আপনার সংরক্ষিত ইউজারনেম এবং পাসওয়ার্ড দেওয়া থাকবে। আপনাকে কোনকিছু টাইপ করতে হবেনা তাই পাসওয়ার্ড যখন টাইপ’ই করছেন না তখন কি-লগার রেকর্ড করবে কি?? তবে একই এড্রেস বা সাইটের জন্য একের অধিক ইউজারনেম বা পাসওয়ার্ড সংরক্ষিত থাকলে ইউজার নেম পাসওয়ার্ড বক্স খালি থাকবে। আপনাকে নির্দিষ্ট ইউজারনেমটি টাইপ করতে হবে এবং পাসওয়ার্ড বক্সে এক ক্লিক করলে সেই ইউজারনেমের সাথে সংরক্ষিত পাসওয়ার্ডটি অটোমেটিক চলে আসবে।তবে এক্ষেত্রেও কি-লগার ইউজারনেম রেকর্ড করতে পারলেও পাসওয়ার্ড রেকর্ড করতে পারবেনা। তাছাড়াও কি-লগার স্ক্রিনশট তুললেও আপনার ইউজারনেমটিই দেখতে পারবে পাসওয়ার্ড নয়। ফলে আপনার পাসওয়ার্ড সুরক্ষিত থাকবে। এক্ষেত্রে অনুরোধ রইলো পাসওয়ার্ড এমন রাখবেন যা ইউজারনেম দেখে ধারনা করা না যায়।

ADs by Techtunes ADs

আর কেউ যাতে আপনার পেনড্রাইভ থেকে আপনার সংরক্ষিত পাসওয়ার্ড দেখতে না পারে এ জন্য Options > Security Tab থেকে Use master password এ ক্লিক করে পাসওয়ার্ড দিয়ে রাখুন। ফলে কেউ পাসওয়ার্ড ম্যানেজার খুলে ইউজারনেম দেখতে পেলেও মাস্টার পাসওয়ার্ড ছাড়া পাসওয়ার্ড দেখতে পারবে না।

আর পোর্টেবল ফায়ারফক্সের মজা হচ্ছে আপনি এটি পেনড্রাইভে বহন করে নিতে পারছেন এবং সবচেয়ে অসুরক্ষিত পিসি (সাইবার ক্যাফের পিসি) তে বসে নিশ্চিন্তে আপনার প্রয়োজনীয় ওয়েবসাইট গুলো ব্রাউজ করতে পারছেন।

ADs by Techtunes ADs
Level New

আমি darklord। বিশ্বের সর্ববৃহৎ বিজ্ঞান ও প্রযুক্তির সৌশল নেটওয়ার্ক - টেকটিউনস এ আমি 11 বছর 6 মাস যাবৎ যুক্ত আছি। টেকটিউনস আমি এ পর্যন্ত 30 টি টিউন ও 114 টি টিউমেন্ট করেছি। টেকটিউনসে আমার 0 ফলোয়ার আছে এবং আমি টেকটিউনসে 0 টিউনারকে ফলো করি।

Share your knowledge with others..........


টিউনস


আরও টিউনস


টিউনারের আরও টিউনস


টিউমেন্টস

ভাই কি লগার প্রোগাম টা কোথায় পাব

আমার মনে হয়না যে ফায়ারফক্স পোর্টেবল ভার্সন কি লগার হতে রক্ষা পাবার কোন ভাল উপায়, কারন কি লগার হলো এমনি প্রোগ্রাম আপনি যাই টাইপ করেন সেগুলো এ সংরক্ষন করে রাখবে। আর এগুলো দিয়েইতো কম্পিউটারে হাতে খড়ি দিয়েছি, হিহিহি….

ভাই আপনার ছবি দেখার অনেক শখ ছিল । আছ দেখলাম। ভালো লাগলো। আর একটা কথা আমার অবতমানে আমার কম্পিউটার কি কি ব্যবহার করেছে তা জানার কোন উপায় আছে কি। থাকলে জানাবেন । ধন্যবাদ

কিলগার আপনে বহুত পাবেন গুগলে বা বিভিন্ন টরেন্ট সাইটে সার্চ করেন

আরিফুল ভাই সেটা আপনি কিলগার দিয়েই করতে পারবেন

হাসান ভাই আপনি টিউনে বর্নিত পদ্ধতি অনুসারে সাইটের পাস ওয়ার্ডগুলি আগে ফায়ারফক্সের পাসওয়ার্ড ম্যানেজারে সেভ করুন তারপর সাইটে লগইন করুন আপনার ব্যাবহারিত কিলগার চালু রেখে । ফলাফল টা জানান। আপনি যখন সাইটের পাসোয়ার্ডটি পাস ওয়ার্ড ম্যানেজারে সেভ করবেন এবং পরবর্তীতে সাইটে লগিন করতে যাবেন তখন শুধু ইউজারনেমটি লিখে পাসওয়ার্ড বক্সে ক্লিক করলেই ফায়ারফক্সের পাস ওয়ার্ড ম্যানেজার থেকে পাসওয়ার্ড টি অটোমেটিক পূরন হয়ে যাবে। লক্ষ করুন এক্ষেত্রে আপনি পাসওয়ার্ডটি কিন্তু কিবোর্ডে টাইপ করেন নি শুধু ইউজার নেমটি টাইপ করেছেন। সেক্ষেত্রে কিলগারটি শুধু ইউজার নেমটি রেকর্ড করবে। আর আমার বর্নিত পদ্ধতি যদি অকার্যকর প্রমানিত হয় তাহলে আমাকে অবশ্যই জানান।

ভাইয়া আপনার টিউনটি পড়লাম,নতুন অনেক কিছু পড়লাম-জানলাম ভারো লাগলো।আচ্ছা ভাইয়া সবচেয়ে অসুরক্ষিত সাইবার ক্যাফের যে কোন পিসিতে পেন ড্রাইভ লাগানো কি ঠিক হবে??

ডার্কলর্ড ভাই আপনার যুক্তি আমি মানছি, এটা অবশ্য সাইবার ক্যাফের জন্য ঠিক আছে। আগে থেকে পাসোয়ার্ডটি সেভ করা থাকলে সেটি সম্ভব।
কিন্তু আমি বলছিলাম এই পাসোয়ার্ডটি যদি সেভ না করা থাকে তখনতো টাইপ করতেই হবে! আর তখনতো সে ধরা খবেই! এই আরকি….
যারা সাইবার ক্যাফেতে ব্রাউজ করেন তাদের এটা অনেক কাজে আসবে 😉

ইয়াসিন এটা আপনার উপর আপনি যদি মনে করেন আপনার একাউন্ট থেকে আপনার পেন ড্রাইভ এর মূল্য বেশী তাহলে ব্যাবহার করবেন না। আর যদি আপনার পাসওয়ার্ড কে সুরক্ষিত রাখতে চান তাহলে এই পদ্ধতি অবলম্বন করতে পারেন। আর নিজ পিসিতে পেনড্রাইভ ঢুকিয়ে ওপেন করার পূর্বে এন্টিভাইরাস দিয়ে স্ক্যান করে নিন। আর আপনার পিসিতেও সেই পোর্টেবল ফায়ারফক্সের একটা কপি রেখে দিন যাতে পেনড্রাইভের টা ভাইরাস ইনফেক্টেড বা করাপ্ট হয়ে গেলে ঝামেলা না হয়

না এগুলো সমাধান নয়। তার চেয়ে বরং ষ্টারট আপে কোন কী লগার আছে কিনা তা কোন পোরটেবল ষ্টারট আপ ভিউয়ার থেকে দেখে নিন। যদিও এটা একটু এক্সপারট লেভেলের কাজ।

eI KEY LOGGER SOFTWARE TA KOTHAY PABO ?
[email protected]

firfox addon use করুন . সব ঝামেলা শেষ. আপনার প্রতিটি type এর letter encrypt হয়ে যাবে

https://addons.mozilla.org/en-US/firefox/addon/3383

আসলে firefox is the best. সব problem এর solution

Please, delete the second post: submit button was mistakenly twice pressed.

Level New

বিপাশা গুগলে সার্চ দিলে এমন অসংখ্য কি লগার আপনি পাবেন তবে আজকালের ক্যাসপারেসকি এভাইরা এন্টিভাইরাস এগুলো ধরে ফেলে

@আজমী আচ্ছা একটা ডিলিট করে দিলাম 😉

Jotil jinis. Sayber cafe te na jaoy better.

ভাইয়া আপনার টিউনটি পড়লাম,নতুন অনেক কিছু জানতে পারলাম। ধন্যবাদ।

অনেক কিছু জানা হলো।
http://bloggersumon.blogspot.com

চমৎকার টিউন

Level 0

সাইবার ক্যফেতে নেট ইউজ করার সময় সেই কম্পিউটারে কি লগার আছে কিনা কিভাবে বুঝব ?

Level 0

WooooooooooooooooooW Nice Share