ফটোশপ জোন(পর্বঃ১৬-রৌদ্রজ্জ্বল নীল আকাশে বিদ্যুৎ চমক+প্রশ্নোত্তর পর্ব)

ফটোশপ জোন

বন্ধুরা, গত পর্ব-১ থেকে পর্ব - ১৪ এবং আজকের পর্ব দিয়ে আমি ফটোশপে  ছবি এডিট করার টিউটোরিয়াল শেষ করলাম।  এরপর থেকে ফটোশপের অন্যান্য বিষয়গুলো নিয়ে ধারাবাহিক টিউটোরিয়াল করব। ছবি এডিটিং বিষয়ক আজ পর্যন্ত যত টিউটোরিয়ালগুলো লিখলাম, এরপরেও আপনাদের ছবি এডিটিং এর ব্যাপারে যদি কোন কিছু জানার থাকে তবে তা এই টিউনে মন্তব্যের আকারে জানাবেন। আমি উত্তর দেয়ার চেষ্টা করব। এবার চলুন মূল প্রসঙ্গে আসি।

রৌদ্রজ্বল নীল আকাশে বিদ্যুৎ চমকাতে দেখেছেন কখনো? দেখননি তাই না? চলুন আজ তাহলে নিজেরাই এমনই একটি বিদ্যুৎ চমকানো আকাশ তৈরির চেষ্টা করি আর দেখি বিদ্যুৎ চমকানো রৌদ্রজ্জ্বল নীল আকাশ।

প্রথমেই একটি রৌদ্রজ্জ্বল  আকাশের ছবি খুলুন নিচের মত।

আকাশটি সিলেক্ট করুন।

নতুন একটি লেয়ার তৈরি করুন।

কীবোর্ড থেকে D প্রেস করুন। ফলে ফরগ্রাউন্ড হিসেবে কালো ও ব্যাকগ্রাউন্ড হিসেবে সাদা রঙ সিলেক্ট হবে।

gradient tool সিলেক্ট করে নিচের মত সেটিং করুন। গ্র্যাডিয়ান্ট হিসেবে ফরগ্রাউন্ড টু ব্যাকগ্রাউন্ড সিলেক্ট করুন।

(*)নতুন লেয়ারটিতে সিলেকশান বরাবর উপর থেকে নিচের দিকে মাউস ড্র্যাগ করে গ্র্যাডিয়েন্ট তৈরি করুন।

filter->render->difference cloud কমান্ড দিন। নিচের মত হবে।

image->adjustment->invert কমান্ড দিন।

আবার image->adjustment->levels কমান্ড দিন। একটি বক্স আসবে, তাতে নিচের মত মান বসান।

নিচের মত পাবেন।

এখন এই লেয়ারটির mode পরিবর্তন করে screen করুন এবং opacity এর মান কমিয়ে  নিজের ইচ্ছামত সামঞ্জস্যপূর্ণ মান দিন।

ফলে নিচের মত পাবেন। প্রয়োজনে কালো রঙের সফট রাউন্ড ব্রাশ দিয়ে অপ্রয়োজনীয় অংশ মুছে ফেলুন

(*) লম্বালম্বি ভাবে বিদ্যুৎ চমক তৈরির জন্য উপর থেকে নিচে gradient প্রয়োগ না করে ডান থেকে বামে বা বাম থেকে ডানে gradient প্রয়োগ করুন। এরপর কালো রঙের সফট রাউন্ড ব্রাশ দিয়ে প্রয়োজনে অপ্রয়োজনীয় অংশ মুছে ফেলুন। এক্ষেত্রে কাজ শেষে নিচের মত ফলাফল পাবেন।

সবাইকে ধন্যবাদ। কেমন লাগলো জানাবেন। আর আবারো জানাচ্ছি ছবি এডিটিং এর ব্যাপারে কিছু জানার থাকলে এখানে কমেন্ট করে উল্লেখ করবেন। ধন্যবাদ সবাইকে।

Level 0

আমি MITHU। বিশ্বের সর্ববৃহৎ বিজ্ঞান ও প্রযুক্তির সৌশল নেটওয়ার্ক - টেকটিউনস এ আমি 10 বছর 5 মাস যাবৎ যুক্ত আছি। টেকটিউনস আমি এ পর্যন্ত 88 টি টিউন ও 1233 টি টিউমেন্ট করেছি। টেকটিউনসে আমার 2 ফলোয়ার আছে এবং আমি টেকটিউনসে 0 টিউনারকে ফলো করি।


টিউনস


আরও টিউনস


টিউনারের আরও টিউনস


টিউমেন্টস

Level 0

বরাবরের মত সুন্দর…………
ধন্যবাদ আপনাকে

    Level 0

    আপনাকেও ধন্যবাদ।

Level 0

Beautiful

    Level 0

    ধন্যবাদ।

মিঠু ভাই আপনার কাছ থেকে ফটো ইডিটিং নিয়ে এই ধরনের কিছু টিউন চাই,যেমন একটা কালো ফেইসের ছবিকে কি ভাবে সুন্দর করা যায়। কোন লোকের মুখে দাঁড়ি নাই কিন্তু আমি কিভাবে ঐ লোককে দাঁড়িওয়ালা ব্যাক্তিতে পরিনিত করবো। ফটো ইডিটিং্যের আর কোন গুরুত্ত পূর্ন টিউন বাঁকি আছে কিনা,তাহা আপুনি ভালো জানেন। অবশেষে ধন্যবাদ আপনাকে।

    Level 0

    আমার মতে আর কোন টিউন বাকি নেই। আপনি আপনার মন্তব্যে ফটোশপের যে ব্যাপারে জানতে চেয়েছেন তাতো আমি আমার আগের টিউনেই দিয়ে দিয়েছি। আমার আগের এসকল টিউনগুলো আবার একটু দেখলে দেখতে পাবেন,আমি কালার ম্যাচ নিয়ে আলোচনা করেছি, এর মাধ্যমে আপনি এক মুখের রঙ আরেক মুখে দিতে পারবেন (পুরোপুরি না তবে কাছাকাছি) । তাছাড়া আপনি ctrl+L প্রেস করে(অথবা image->adjustment->levels কমান্ড দিয়ে) প্রাপ্ত একটি বক্সের মানে পরিবর্তন করে ও ফেইস সুন্দর করতে পারেন। আরেকটি পর্বে আমি টাক মাথায় চুল গজানোর উপায় নিয়ে কথা বলেছি। এখন আপনিই বলুনতো,চুল আর দাড়ি কি আসলে ভিন্ন কিছু ? ধন্যবাদ। আমার মনে হয় আর কোন সমস্যা হবে না। হলে জানাবেন। 🙂

জবাব নেই

    Level 0

    হায় হায় , মুখে জবাব না থাকলে কমেন্ট পাব কেমনে!!!!হা হা হা হা,ফান করলাম,আপনি মনে হয় একটু বেশিই টিভিসক্ত,তা না?

অনেক সুন্দর

ভালো জিনিষ নিয়ে লিখেছেন। লা জবাব…

    Level 0

    হুম,ধন্যবাদ, বিষ্ময়ে আপনার চোখগুলো বড় হয়ে গেছে,দেখেই বুঝতে পারছি, 😉

ভালা জিনিস…এহনই বানাইতাছি ! 😀

কি আর লিখব………সবই টিউনই তো জাদু…………….

    Level 0

    হা হা হা,ছু মন্তর ছু।

ভাইয়া সাথে আছি।ভাইয়া ফটোশপ শেষ করেন,আমি পাওয়ারপয়েন্ট শেষ করি।তাহলে tutorial complete হয় না।এই বদনাম ঘুচে যাবে।

amar biddut to kalo ronger hoe gelo.

    Level 0

    কারণ আপনি image->adjustment->invert এই কমান্ড বাদ দিয়েছেন। প্রথম থেকে আবার সূক্ষ্মভাবে করুন।

dashing tune ^-^

Level New

just awesome mithu vai……amara achi apnar shathe, shob tune ami portisi….very nice, aro tune korben asha kori in future…..অনেক অনেক ধন্যবাদ

অনেক সুন্দর