ADs by Techtunes ADs
ADs by Techtunes ADs

পিসি সুপার ইউজার [পর্ব-০১] :: আপনার পিসি কে এক্ষুনি উইন্ডোজ ১০ এ আপগ্রেড করার জন্য ১০টি কারণ!

টিউন বিভাগ উইন্ডোস
প্রকাশিত
জোসস করেছেন

পিসি সুপার ইউজার

সকলের প্রতি ভালবাশা জানিয়ে শুরু করছি আজকের লেখা! বর্তমান সময়ে উইন্ডোজ ১০ এক বিশাল আলোচনার বিষয়। কয়েকদিন আগে আমরা কম বেশি সবাই বেশ উত্তেজনার মধ্যে ছিলাম, যে কেমন হতে পারে উইন্ডোজ ১০ ব্যবহার করার অভিজ্ঞতা। হাঁ, গত ২৯ তারিখ সেই অপেক্ষার অবসান ঘটিয়ে উইন্ডোজ ১০ এর সম্পূর্ণ সংস্করন আমাদের কাছে পৌঁছে দিয়েছেন পৃথিবীর সবচাইতে বড় সফটওয়্যার নির্মাতা কম্পানি মাইক্রোসফট! আপনারা ইতি মধ্যেই অনেকেই তা ব্যবহার অ করতে শুরু করে দিয়েছেন নিশ্চয়। কিন্তু যারা এখনও তাদের পিসি বা ল্যাপটপ কে উইন্ডোজ ১০ এ আপগ্রেড করেননি, বা আপগ্রেড করবেন কি না তা নিয়ে বিতর্কিত, তবে আমি বলব যে আমার আজকের লেখাটি আপনার জন্যই। আপনাকে দেখিয়ে এবং বুঝিয়ে দিচ্ছি যে কেন আপনার পিসি কে উইন্ডোজ ১০ এ আপগ্রেড করবেন।

ADs by Techtunes ADs

১। দ্রুত গতিঃ

আসলে গতি ই হলো সব কিছু। আপনি যদি উইন্ডোজ ৮ বা ৮.১ ব্যবহার করে না থাকেন, তবে আপনি উইন্ডোজ অপারেটিং সিস্টেম এর বেস্ট জিনিস টাই মিস করে ফেলেছেন। যারা এখনও উইন্ডোজ ৭ ব্যবহার করছেন তারা নিশ্চয় Fast Startsup ফিচার টি তলিয়ে দেখতে চান! উইন্ডোজ ১০ এর গুরুত্বপূর্ণ ফিচার গুলর মধ্যে অন্যতম ফিচার হলো Fast Startsup। আপনার পিসি চোখের নিমিষেই Ready To Use হয়ে যাবে জা আপনি ভাবতেই পারবেন না। উইন্ডোজ ৮.১ MacBook তে OS X এর চাইতেও দ্রুত Startsup হইতে সক্ষম ছিল। এবং উইন্ডোজ ৮.১ উইন্ডোজ ৭ এর তুলনায় fast booting operating system ছিল। হাঁ বন্ধুরা, উইন্ডোজ এর এই নতুন operating system  উইন্ডোজ ১০ আরো বেশি গতি সম্পূর্ণ। এতে রয়েছে DirectX 12 এবং the new 3D engine, যেটা Gamers এবং game developers দের জন্য এনে দিয়েছে অসাধারণ অভিজ্ঞতা। আপনি পাবেন Multi Tasking এর এক চরম অভিজ্ঞতা এই উইন্ডোজ ১০ এর সাথে, এবং সব চাইতে ভাল কথা এইটা আপনার পিসি উইন্ডোজ ৭ এর তুলনায় ৬০% বেশি গতি সম্পূর্ণ থাকবে। তাই এখনও যারা উইন্ডোজ ৭ এ ই বসে আছেন তাদের জন্য Fast StartsUp, Fast Gaming Performance, Fast Task Speed, Power Multi Tasking, Direct X 12 ইত্যাদি হওয়া উচিত উইন্ডোজ ১০ এ তাদের পিসি কে আপগ্রেড করার অন্যতম কারন।

২। The Start Menu:

tech community এর অনেক অভিযোগ এর ফলে উইন্ডোজ ৮ এ হারিয়ে জাওয়া Start Menu আপনি আবার উইন্ডোজ ১০ এ পেয়ে যাবেন। মাইক্রোসফট উইন্ডোজ ৯৫ থেকে শুরু করে উইন্ডোজ ৭ পর্যন্ত বহাল রাখা Start Menu কে উইন্ডোজ ৮ এবং উইন্ডোজ ৮.১ এ হাস্যকর ভাবেই পরিবরতন করে ফেলেন। নতুন Start Menu অনেকের ভাল লাগেও ভালো লাগেনি বেশিরভাগ পিসি ইউজার দের। তাই উইন্ডোজ ১০ এ মাইক্রোসফট আবার নিয়ে এসেছেন আগের সেই চেনা পরিচিত স্টার্ট মেনু। কিন্তু এইবার একটু আলাদা, এবং উইন্ডোজ ৭ এর তুলনায় উন্নত। স্টার্ট মেনু তে লাইভ টাইলস আছে লাইভ ইনফর্মেশন পাবার জন্য, তাছাড়া আপনি আপনার স্টার্ট মেনু কে ইচ্ছা মত ছোট বড় করে নিতে পারবেন। তাছাড়া অ আছে Tablet Mode, অর্থাৎ আপনি চাইলে স্টার্ট মেনু কে উইন্ডোজ ৮ এবং উইন্ডোজ ৮.১ এর মত ফুল স্ক্রীন অ করতে পারবেন। তাই যারা উইন্ডোজ ৮.১ এর বদলে যাওয়া স্টার্ট মেনু নিয়ে অসন্তুষ্ট তারা উইন্ডোজ ১০ এ পিসি কে আপগ্রেড করিয়ে স্টার্ট মেনু কে ফিরিয়ে নিয়ে আস্তে পারেন।

৩। করটানাঃ

করটানা এক অসাধারণ talking technology। করটানা আগে শুধু মাত্র উইন্ডোজ ফোন এ ব্যবহার করা যেতো, কিন্তু উইন্ডোজ ১০ এ আপনি একে আপনার ডেস্কটপ এ অ ব্যবহার করতে পারবেন। মিউজিক প্লে করা, কোন কিছু নোট করা, কিছু রিমাইন্ড করা, মেইল সেন্ড করা ইত্তাদি নিত্য দরকারি কাজ গুলো আপনি শুধু মাত্র কথা বলিয়ে করিয়ে নিতে পারেন করটানা কে দিয়ে। শুধু কিন্তু তাই না, এছাড়া অ আপনার হাজার হাজার প্রশ্নের উত্তর দেবার জন্য প্রস্তুত এই করটানা। শুধু আপনার পিসি কে বলুন "হেই করটানা" ব্যাস! করটানা হাজির হয়ে যাবে আপনার কাছে। মজা তাই না? এই মজা দার সঙ্গীর জন্য আপনার পিসি কে এক্ষুনি উইন্ডোজ ১০ আ আপগ্রেড করে ফেলুন।

৪। Universal Apps:

আপনি যদি উইন্ডোজ ৭ ব্যবহার কারি হয়ে থাকেন তবে আপনার কাছে কিন্তু অ্যাপ স্টোর নাই। উইন্ডোজ ১০ ছোটো এবং বড়ো কাজের জন্য রয়েছে অনেক অ্যাপস। যেগুলো আপনি ফুল স্ক্রীন এবং কাস্টম স্ক্রীন এ ব্যবহার করতে পারবেন। তাছাড়াও উইন্ডোজ ১০ এ রয়েছে নতুন সব শক্তিশালী অ্যাপস। যেমনঃ new Photos, Videos, Music, Maps, People, Mail, and Calendar। তাছাড়া এই অ্যাপস গুলো টাচ, মাউস, কীবোর্ড ইন পুট সমর্থন করে। তাই কোন সর্ত ছাড়ায় চলে যান টু উইন্ডোজ ১০.

 ৫। টাচঃ

আপনার জিবনের প্রত্যেকটি স্ক্রীন এর কথা কল্পনা করে দেখুন। আপনার স্মার্ট ফোন, আপনার ট্যাবলেট এমন কি আপনার car navigation system সব কিছু এ কিন্তু টাচ স্ক্রীন! তাহলে ডেস্কটপ এবং ল্যাপটপ পিসি টাচ স্ক্রীন কেন নয়? হাঁ বন্ধুরা উইন্ডোজ ১০ সম্পূর্ণ টাচ UI. উইন্ডোজ ১০ পরিচালিত টাচ পিসি তে আপনি পাবেন নতুন এর ভাল লাগা। সাথে থাকছে উইন্ডোজ ১০ এর নতুন আইকন্স এবং সেটিং অ্যাপস। হুম, আপনি কি টাচ পিসি ব্যবহার করছেন? কোন operating system দিয়ে? উইন্ডোজ ৭? ধুর, এক্ষুনি পরিবর্তন করে ফেলুন।

ADs by Techtunes ADs

 ৬। Action Center:

আপনার স্মার্ট ফোন আপনাকে pops up notifications দেয় messages, updates, এমন কি breaking news পর্যন্ত। তাহলে আপনার পিসি কেন নয়? হাঁ, উইন্ডোজ ১০ এ এখন তা সম্ভব। Mac osX এর মত এখন উইন্ডোজ ১০ ও আপনাকে দিচ্ছে Notification Center। যেখানে আপনি messages, ইমেইল, নতুন Updates ইত্তাদি সকল pops up notifications পাবেন আপনার সিস্টেম এবং এক্সটারনাল অ্যাপস এর।

৭। একটি নতুন ব্রাউজার:

উইন্ডোজ ১০ এর default ব্রাউজার Microsoft Edge এক নতুন প্রজন্ম ইন্টারনেট ব্রাউজার। এটি অনেক গতি সম্পূর্ণ এবং নতুন ফিচার সম্পূর্ণ। webpage markup এবং reading mode এই গুরুত্বপূর্ণ ফিচার গুলো পাবেন এই ব্রাউজার এ। তাছাড়া আমি Microsoft Edge ব্যবহার করার ৬ টি বিশেষ কারন নিয়ে খুব তারাতারি টিউন করব, আশাকরি সাথেই থাকবেন।

 ৮। নিরাপত্তাঃ

উইন্ডোজ ৮ এর তুলনায় উইন্ডোজ ১০ এর নিরাপত্তা বাবস্থাকে আর উন্নত করে করা হয়েছে। এবং উইন্ডোজ ১০ এ কোন নিরাপত্তা ইস্যু কে এরিয়ে যাওয়া সম্ভব হবে না। তাছাড়া উইন্ডোজ ১০ পিসি তে নতুন ৩ টি নিরাপত্তা বাবস্থা চালু করা হয়েছে সেগুলো হলোঃ Device Guard, Microsoft Passport and Windows Hello। আরো বিস্তারিতো জানার জন্য Windows for Your Business blog ঘুরে আসতে পারেন।

৯। Virtual Desktops:

Mac ইউজার রা কয়েক বছর যাবত এই সুবিধা টি উপভোগ করে আসছেন। এবং অবশেষে মাইক্রোসফট তার নতুন desktop operating system উইন্ডোজ ১০ এ এই সুবিধাটি যোগ করেছেন। এই ফিচারটির মাদ্ধমে আপনি অনেকগুলো Virtual DeskTops ব্যবহার করতে পারবেন। যেগুলো তে আপনি আলাদা আলাদা Tasking করতে পারবেন। আপনাকে শুধু মাত্র task-switching আইকন টি তে ক্লিক করতে হবে, যেটা করটানা Search Box এর পরেয় অবস্থিত।

১০। Xbox:

যদি আপনি একজন Gamer হন, তবে আমি জানি যে আপনি এই ফিচারটির জন্য বিশেষ করে আপনার পিসি কে উইন্ডোজ ১০ এ আপগ্রেড করতে চাইবেন। উইন্ডোজ ১০ এ আছে এক্সবক্স! এর মাদ্ধমে আপনি আপনার এবং আপনার বন্ধুর achievements দেখতে পাবেন। তাছাড়া ও আপনি অনলাইন থেকে গেম stream করতে পারবেন, এবং এক্সবক্স এ থাকা প্লেয়ার দের সাথে Game Challenge করতে পারবেন।

ADs by Techtunes ADs

আশা করি, আমি আপনাদের বুঝাতে পেরেছি উইন্ডোজ ১০ এর আপগ্রেড গুরুত্ব। কোন প্রশ্ন থাকলে Comment করতে পারেন। আর হাঁ, আমি "পিসি সুপার ইউজার" এবং "উইন্ডোজফোন সুপার ইউজার" নামক দুইটি চেইন টিউন নিয়মিত করে যাব, আশা করি ভাল লাগবে। এবং আপনারা সকলেই পড়বেন আমার টিউন গুলো।

ADs by Techtunes ADs
Level 6

আমি তাহমিদ বোরহান। বিশ্বের সর্ববৃহৎ বিজ্ঞান ও প্রযুক্তির সৌশল নেটওয়ার্ক - টেকটিউনস এ আমি 5 বছর 12 মাস যাবৎ যুক্ত আছি। টেকটিউনস আমি এ পর্যন্ত 178 টি টিউন ও 682 টি টিউমেন্ট করেছি। টেকটিউনসে আমার 33 ফলোয়ার আছে এবং আমি টেকটিউনসে 1 টিউনারকে ফলো করি।

আমি তাহমিদ বোরহান। টেক নিয়ে সারাদিন পড়ে থাকতে ভালোবাসি। টেকটিউন্স সহ নিজের কিছু টেক ব্লগ লিখি। TecHubs ব্লগ এবং TecHubs TV ইউটিউব চ্যানেল হলো আমার প্যাশন, তাই এখানে কিছু অসাধারণ করারই চেষ্টা করি!


টিউনস


আরও টিউনস


টিউনারের আরও টিউনস


টিউমেন্টস

অনেক সুন্দর হইছে টিউনটা।

উইন্ডোজ ১০ ব্যবহার না করলে দারুন জিনিস মিস করবেন।একটা জিনিস উইন্ডোজ ১০

অসাধারন টিউন ভাই চালিয়ে যান

Level New

I’m using Windows 10. Very nice & Fast 🙂

win 10 use kore ar santi pilam na. koyekodin por por e jhamela kore. er caite amar kache 8.1 speedy & stable mone hoy.

ভাইজান, আমার পিসি Intel Pentium @6950 2.88 gHz ! আমি আগে একবার উইন্ডোজ 10 দিসিলাম,, কিন্তু গ্রাফিক্স পায়না ।
এটা দিলে কি একই সমস্যা করবে নাকি সব ঠিকঠাক চলবে ??